সামনে ২০২২-এ উত্তর প্রদেশের বিধানসভা নির্বাচন, জরিপে এগিয়ে যোগীর বিজেপি সরকার

0
27

শরীয়তুল্লাহ সোহন, ওয়েব ডেস্কঃ

উত্তর প্রদেশের বর্তমান মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ ও বিতর্ক যেন একই মুদ্রার এপিঠ-ওপিঠ। বরাবরই কোন না কোনভাবে বিতর্কিত মন্তব্য করে খবরের শিরোনামে নিজেকে রাখতে ভালোবাসেন তিনি। কখনও জায়গার নাম পরিবর্তন করে, কখনও বা উগ্র ভাষণ দিয়ে সবসময় রাজনৈতিক ময়দান গরম করে তুলে নিজেকে চর্চায় রাখেন। এত কিছুর মধ্যে দিয়ে উত্তর প্রদেশে বিধানসভা ভোট দরজায় কড়া নাড়ছে। যতই তিনি নিজেকে বিতর্কে রাখুক না কেন এবারও ২০২২ সালের বিধানসভা নির্বাচনে ‘হট ফেবারিট’ যোগী আদিত্যনাথ। তাই রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞ মহল উত্তর প্রদেশের মূখ্যমন্ত্রী পদের দৌড়ে বাজি ধরছেন যোগী আদিত্যনাথের হয়ে।

Yogi Adityanath
যোগী আদিত্যনাথ

যদিও গঙ্গায় করোনায় মৃত দেহ ভাসিয়ে দেওয়ার মত অভিযোগ ও লখিমপুরের ঘটনার মত ভয়াবহ ঘটনার পরও সম্প্রতি করা জরিপে দেখা যাচ্ছে, আবারও উত্তর প্রদেশের ক্ষমতায় আসছে বিজেপি। জরিপের তথ্যমতে, নরেন্দ্র মোদির উন্নয়নের পথকেই বেছে নিতে যাচ্ছেন রাজ্যের ভোটাররা। সেই পথ ধরেই হয়তো দ্বিতীয়বারের মতো যোগী আদিত্যনাথ মুখ্যমন্ত্রী হতে যাচ্ছেন। টেলিভিশন চ্যানেল টাইমস নাউ ও পোলস্টাটের জনমত জরিপে একথা বলা হয়েছে।

আগামী বছর উত্তরপ্রদেশের বিধানসভা নির্বাচন হবে। ৪০৩টি আসনের মধ্যে ২৩৯ থেকে ২৪৫টি আসনে এগিয়ে আছে বিজেপি। পাঁচ বছর আগে নিরঙ্কুশ সংখ্যাগরিষ্ঠতা নিয়ে রাজ্যে সরকার গঠন করেছিল বিজেপি। সেবার ২০১৭ সালের বিধানসভা নির্বাচনে ৩১২ টি আসনে জয়লাভ করে, এককভাবে ক্ষমতার মসনদে বসেছিল যোগী আদিত্য নাথের সরকার। ১৪ বছর পর উত্তর প্রদেশে ক্ষমতায় আসার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির উন্নয়ন এবং মুখ হিসেবে যোগী আদিত্যনাথ ছিল বাজির ঘোড়া। পাঁচ বছর পর একই বাজিতে এগোতে চায় গেরুয়া শিবির।

আরও পড়ুনঃ দূষণ নিয়ন্ত্রণে সিএকিউএম-এর নির্দেশ মেনে কমিটি গঠন হরিয়ানা সরকারের

জনমত জরিপে বলা হয়েছে, সাবেক মুখ্যমন্ত্রী অখিলেশ যাদবের দল সমাজবাদী পার্টি ১১৯ থেকে ১২৫ আসনে এগিয়ে থেকে প্রধান বিরোধী দল হতে পারে। সাবেক মুখ্যমন্ত্রী মায়াবতীর বহুজন সমাজবাদী পার্টি (বিএসপি) পেতে পারে ২৮ থেকে ৩২ আসন। আর উত্তর প্রদেশে জোট না করে ভোট করার ঘোষণা দেওয়া রাহুল-প্রিয়াঙ্কা গান্ধীরা পেতে পারেন পাঁচ থেকে আটটি আসন।

আইনশৃঙ্খলার অবনতি, করোনায় জেরবার অবস্থা নিয়ে যোগী আদিত্যনাথের সরকারকে কোণঠাসা করার চেষ্টা করে যাচ্ছে বিরোধীরা। এরপরও জরিপে দেখা যাচ্ছে, রাজ্যে ৫০ শতাংশের বেশি মানুষ মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে যোগী আদিত্যনাথকেই চান ভোটাররা।

আরও পড়ুনঃ পুরভোট নিয়ে রাজ্য নির্বাচন কমিশনের হলফনামা তলব হাইকোর্টের

২০২২ সালে কী হবে, কে সরকার গঠন করতে পারে? ৯ হাজার জনমতের ওপর ভিত্তি করে এই সমীক্ষা করেছে টাইমস নাউ ও পোলস্টাট। জরিপে দেখা যাচ্ছে, পশ্চিম উত্তর প্রদেশ অঞ্চলে একমাত্র বিজেপিকে বিরোধীদের কঠোর বিরোধিতার মুখোমুখি পড়তে হতে পারে। রাজ্যের সবচেয়ে বেশি আসন পূর্বাঞ্চলে ৯২টি আসনের মধ্যে বিজেপি এগিয়ে ৪৭ থেকে ৫০ আসনে।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here