মঙ্গলকোটে পনেরোর মধ্যে আটে আট তৃণমূল

0
529

শ্যামল রায়,মঙ্গলকোটঃ

মঙ্গলকোট পঞ্চায়েত সমিতিতে ১৫টি গ্রাম পঞ্চায়েত রয়েছে। বৃহস্পতিবার ৮টি গ্রাম পঞ্চায়েতে বোর্ড গড়ল তৃণমূল কংগ্রেস।
বোর্ড গঠনকে ঘিরে ব্যাপক পুলিশ মোতায়েন করা হয় পঞ্চায়েত সমিতির বিভিন্ন গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকায়।পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে যে পঞ্চায়েত বোর্ড গঠন কে ঘিরে কোনোরকম বিশৃঙ্খলা অশান্তি না ঘটে তার জন্যই পুলিশ মোতায়েন করা ছিল।

ছবিঃপ্রতিবেদক

তৃণমূলের ব্লক সভাপতি অপূর্ব চৌধুরী।জানিয়েছেন যে এদিন আটটি গ্রাম পঞ্চায়েতে বোর্ড গঠন হলো ।
মঙ্গলকোটে রয়েছে ১৮ টি আসন।সবকটি আসনেই বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী হয়েছে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থীরা।নব নির্বাচিত সদস্য সদস্যদের শপথ বাক্য পাঠ শেষে প্রধান নির্বাচিত হয়েছেন হাসনাহারা বেগম । উপপ্রধান হয়েছেন চন্দন সরকার।
অপূর্ব চৌধুরি আরও জানিয়েছেন যে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় তাদের ব্লকের সমস্ত গ্রাম পঞ্চায়েত তৃণমূল প্রার্থীরা জয়লাভ করেছে।চাণক গ্রাম পঞ্চায়েতে সদস্য সদস্যদের শপথ বাক্য শেষে প্রধান নির্বাচিত হয়েছেন মায়া মাঝি ও উপপ্রধান রিনা চক্রবর্তী আসন সংখ্যা ছিল ১৫টি।শিমুলিয়া ২নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতে প্রধান নির্বাচিত হয়েছেন রানী দাস ও উপপ্রধান নির্বাচিত হয়েছেন জোৎস্না মাঝি।
এছাড়াও লাখুরিয়া গ্রাম পঞ্চায়েতে প্রধান নির্বাচিত হয়েছেন হট্ট গড়াই ও উপপ্রধান সুলতানা বেগম।তিস্তা গ্রাম পঞ্চায়েতে প্রধান নির্বাচিত হয়েছেন নব কুমার ঘোষ উপপ্রধান হয়েছেন বেলি মাঝি।
ঝিলু১ নম্বর গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান নির্বাচিত হয়েছেন স্বাধীন ঘোষ উপপ্রধান সোহাগী সরদার।ঝিলু২ গ্রাম পঞ্চায়েতে প্রধান নির্বাচিত হয়েছেন পূর্ণিমা মাঝি উপপ্রধান নির্বাচিত হয়েছেন হেসমত শেখ।পালি গ্রাম পঞ্চায়েতে প্রধান হয়েছেন ধানু হেমব্রম ও উপপ্রধান হয়েছেন মজনু শেখ।এই গ্রাম পঞ্চায়েতে আসন সংখ্যা ছিল ১০টি।
এদিনকার পঞ্চায়েত বোর্ড গঠনকে ঘিরে তৃণমূলের নেতৃত্বের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মুন্সি রেজাউল হক মেহবুব চৌধুরী ও তৃণমূলের ব্লক সভাপতি অপূর্ব চৌধুরীসহ বিভিন্ন আঞ্চলিক সভাপতি ও জনপ্রতিনিধিরা।
বোর্ড গঠন ঘিরে অপূর্ব চৌধুরী বলেন যে ভীষণ ভালো লাগছে আজ। আমরা জানতাম আদালত সঠিক রায় দেবে কারণ বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আমাদের দলের প্রার্থীরা জয়লাভ করায় কিছুদিন ধরে উন্নয়ন স্তব্ধ হয়ে যাচ্ছিল আজ এলাকার মানুষ যেমন খুশি হয়েছেন আমরাও তেমনি খুশি হয়েছি। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় যেভাবে রাজ্য জুড়ে মানুষের জন্য উন্নয়নমুখী কাজ করে চলছেন আমরাও সেই পথের দিশারী হয়ে উন্নয়নের ধারা বজায় রেখে আরো গতিশীল করার লক্ষ্য নিয়ে আগামী গ্রাম পঞ্চায়েতের প্রধান উপ্রধানরা জোর কদমে কাজ করবেন যা হবে শুধু মানুষের জন্য পরিষেবা।উন্নয়ন নিয়ে কোন রকম ঘড়িমসি নয় উন্নয়ন নিয়ে মানুষের সাথে আমরা থাকবো দাবি তৃণমূল নেতৃত্বের।শুক্রবার আরও দশটি গ্রাম পঞ্চায়েতের বোর্ড গঠন হবে ।তৃণমূল বোর্ড গঠন করবে।

আরও পড়ুনঃ টানা বৃষ্টিতে নাজেহাল আমজনতা,হাসি ফুটেছে ধান চাষীদের

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here