বীরভূমের সভাতে অনুব্রতকে তোপ দিলীপের

0
88

পিয়ালী দাস,বীরভূমঃ
‘আপনে ঘরমে কুত্তা ভি শের হোতা হ্যায়’, তৃণমূল জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলের ঘরে এসে তাঁকেই এই ভাষাতে আক্রমণ করলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

লাভপুরে বিজেপি কর্মীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধারের তদন্তে গড়িমসির প্রতিবাদে বুধবার বোলপুরে রেল ময়দানের মাঠে ট্রাকটরের উপর দাঁড়িয়ে একটি সভা করে বিজেপি।এই সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে রাজ্য সরকার ও তৃণমূলকে চড়া সুরে আক্রমণ করেন দিলীপ ঘোষ
প্রসঙ্গত, লাভপুরের দ্বারকা গ্রামে বিজেপি কর্মী তাপস বাগদীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়েছিল৷ বিজেপি করার অপরাধে তৃণমূলের লোকজন খুন করেছে বলে লাভপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন নিহতের বাবা আনন্দ বাগদী। বিজেপির অভিযোগ,নিহতের পরিবারের অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিস এখনও মামলাই দায়ের করেননি।
এই প্রতিবাদে এদিন বোলপুরের রেল ময়দান থেকে শহর জুড়ে মিছিল করে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ। পরে রেল ময়দানে একটি সভা করেন।

নিজস্ব চিত্র

এই সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে দিলীপবাবু বলেন, ” ডিসেম্বরে যখন রথ বেরোবে তখন তৃণমূলের ভিতটা কেঁপে যাবে।পাপের ঘড়া ভরে গেছে। পশ্চিমবঙ্গের মানুষ ১৯ সালে সেই ঘড়াটা ভেঙে দেবে।২১ সাল পর্যন্ত পৌঁছবে না।২০ সালেই দিদির সর্বনাশ হয়ে যাবে।দিদিকে আমরা কালীঘাটে পাঠিয়ে দিয়ে বলব অনেক পরিশ্রম করেছো এবার বিশ্রাম করো।”
রাজ্য সরকারকে কটাক্ষ করে তিনি বলেন, “কলকাতা সাজিয়ে দিয়েছেন।নীল সাদা লাইটে। রাজ্যে ১৫০০ কোটি টাকা ইলেকট্রিক বিল বাকি আছে।এই রাজ্যে বিদ্যুতের বিল সবচেয়ে বেশি। সারা ভারতে কোথাও এত ইলেকট্রিক বিল নেই।” এছাড়াও,দিলীপ ঘোষ অনুব্রত মণ্ডলকে কড়া ভাষায় কটাক্ষ করেন,নাম না করে কুকুরের সঙ্গে তুলনা করেন তিনি।

পালটা দিলিপ ঘোষ,সায়ন্তন বসুকে কটাক্ষ করতে ছাড়েননি অনুব্রত মণ্ডল। তিনি বলেন, “দিলিপ বাবুর আচরন কুকুরের মতো তাই উনার কুকুরের কথা মনে পড়েছে।আমি শুনেছি উনাকে বাড়ির লোকেরাও বেধে রাখেন।” রথ প্রসঙ্গে তিনি বলেন যে, “রথের আগে থাকবে খোল করতাল। মৃত্যু মিছিল যাবে বিজেপির।”
এরপরই তৃণমূলের জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডলের নাম উচ্চারণ না করে দিলীপ ঘোষ বলেন, “আপনাদের এখানে একজন নেতা আছে না।জেলা প্রেসিডেন্ট।এখানে খুব বড় বড় ডায়লগ দেন।আপনে ঘরমে কুত্তা ভি শের হোতা হ্যায়।নিজের এলাকায় লেজ উঁচু, নিজের এলাকার বাইরে গেলেই লেজ নিচু।আমরা শেরের মত সব জায়গায় আওয়াজ মারি।”

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে দিলীপ ঘোষ বলেন, “দিদিমণি ও তাঁর ভাইপো তড়পাচ্ছেন যে, মোদিজি এখানে দাঁড়ালে নাকি হেরে যাবেন। আমি বীরভূমের মাটিতে দাঁড়িয়ে বলে যাচ্ছি তৃণমূলের যদি হিম্মত থাকে কোন সিটে দাঁড়াচ্ছেন সেটা আগে ঘোষণা করে দিন।যদি জিতে আসেন,আপনারা যা বলবেন করব। সব কটা পার্টি অফিস বন্ধ করে দেব।”

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here