হাঁড়ি নিয়ে হাতাহাতি, আহত ৪

0
11

পিয়া গুপ্তা, উত্তর দিনাজপুরঃ

পূর্বপুরুষের দেওয়া তামার হাঁড়ির ভাগাভাগিকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষে চারজন জখম হওয়ার ঘটনায় চাকুলিয়া থানার দলিয়া বাজার এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়েছে।

ঘটনায় গুরুতর জখম একজন আশঙ্কাজনক অবস্থায় ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন। ঘটনায় পরিবারের পক্ষ থেকে চাকুলিয়া থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে।

চিকিৎসাধীন আহত। নিজস্ব চিত্র

জানা গিয়েছে, চাকুলিয়া থানার চৌকাই এলাকার বাসিন্দা মহম্মদ জাবির আলম তাঁর ভাই সালামকে পূর্বপুরুষের দেওয়া তামার হাঁড়ি অনুষ্ঠানের জন্য দিয়েছিল।

সেই হাঁড়ি জাবির আলম ফেরত চাইলে সালাম রাজী হয়নি। জাবির আলম দলিয়া বাজার থেকে বাড়ি ফেরার সময় সালাম দলবল নিয়ে জাবিরকে মারধর করতে শুরু করে।

আরও পড়ুনঃ জলঙ্গীতে আত্মঘাতী আশা কর্মী

জাবিরকে মারধর করতে দেখে জাবিরের ভাই জাফর আলম ও কাকাতো ভাই মুনাজির আলম, আলি অসগররা জাবিরকে বাঁচাতে গেলে সালাম তাঁদেরও ধরে মারধর করে বলে অভিযোগ।

খবর পেয়ে জাবিরের ভাইপো মুন্না মুস্তাক ঘটনাস্থলে পৌঁছে জখমদের কানকি ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা জাবির আলমকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ইসলামপুর মহকুমা হাসপাতালে স্থানান্তর করে। জাবিরের ভাই জাফর আলম ও কাকাতো ভাই মুনাজির আলম, আলি অসগররা কানকি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

জাবিরের ভাইপো মুন্না মুস্তাক বলেন, পূর্বপুরুষের দেওয়া তামার হাঁড়ি নিয়েই সালাম আমার কাকা ও ভাইদের মারধর করেছে। ওই হাঁড়িতেই আমাদের পরিবারের অনুষ্ঠানের খাবার রান্না করা হয়। ওরা আমার কাকাকে মেরে ফেলার উদ্দেশ্য ছিল। আমরা চাকুলিয়া থানায় সালামদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছি।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91-9593666485