হায়দ্রাবাদকে হারানোর ব্যাপারে আশাবাদী হাবাস

0
23

অঞ্জন চট্টোপাধ্যায়, স্পোর্টস ডেস্কঃ

শুক্রবার ফতোরদা স্টেডিয়ামে এটিকে মোহনবাগানের পঞ্চম ম্যাচের প্রতিপক্ষ হায়দ্রাবাদ এফসি। এটিকে মোহনবাগান জামশেদপুর এফসি-র কাছে ১-২ গোলে হেরে অল্প হলেও চাপে। যদিও সেই চাপ অনুভব করছেন না এটিকে -মোহনবাগান কোচ হাবাস। রাইট উইং ব্যাক প্রবীর দাস ও স্ট্রাইকার রয় কৃষ্ণাকে কড়া পাহাড়ায় রেখে এটিকে মোহনবাগানকে সমস্যায় ফেলেছিল তাদের প্রতিপক্ষ।

Antonio Lopez Habas | newsfront.co

তাই এই পরিকল্পনায় এবার বদল আনতেই হবে তাদের। তবে শেষ ১৫ মিনিটে যে ভাবে আক্রমণের ঝড় তুলেছিল সবুজ-মেরুন বাহিনী, বিশেষ করে মনবীর সিং শেখ সাহিল ও জয়েশ রানে রিজার্ভ বেঞ্চ থেকে নামার পরে যে ভাবে বিপক্ষকে চাপে ফেলে দিয়েছিল, তাতে এটুকু বোঝা যায় যে দলটার আক্রমণের ধার একেবারেই নষ্ট হয়ে যায়নি।

নিজেদের রক্ষণ সামলে মাঝমাঠকে শক্তিশালী রেখে আক্রমণে ওঠার যে পরিকল্পনা বরাবরই থাকে হাবাসের, সেই পরিকল্পনা নিয়ে তারা হায়দ্রাবাদের বিরুদ্ধেও নামতে পারে। এই ম্যাচে চোট সারিয়ে ফিরতে পারেন ডেভিড উইলিয়ামসও।

আরও পড়ুনঃ মেলবোর্নে বক্সিং-ডে ত্রিশ হাজার দর্শক মাঠে বসে দেখতে পারবে

তাই জয়ে ফেরা নিয়ে আশাবাদী হাবাস। তবে বিপক্ষের সেট পিস মুভ থেকে আর গোল খেতে চান না তিনি। বৃহস্পতিবার ভার্চুয়াল সাংবাদিক বৈঠকে বললেন, “সেট পিস সিচুয়েশনে আশা করি আমরা আরও ভাল করব। গত ম্যাচে বিপক্ষে খুব ভাল ভাল খেলোয়াড় ছিল। তবে এবার যেই থাক, আশাকরি একই ভুলের পুনরাবৃত্তি হবে না।”

আরও পড়ুনঃ জামশেদপুর ম্যাচে ড্র দিয়ে পয়েন্টের খাতা খুলল ইস্টবেঙ্গল

নিজের দলের প্রশংসা করে স্প্যানিশ কোচ বলেন, “আমাদের দল ভাল। চোট-আঘাত সমস্যা আছে ঠিকই। কিন্তু যারা আছে, তাদের আত্মবিশ্বাস যথেষ্ট। বিভিন্ন জায়গায় ও বিভিন্ন পরিস্থিতিতে উপযুক্ত খেলোয়াড়কে কাজে লাগাতে হবে শুধু।” এত ঘন ঘন ম্যাচ নিয়েও কিছুটা বিরক্ত হাবাস। বলছেন, “যদিও এর কোনও সমাধান নেই। কিন্তু তিন-চার দিন অন্তর ম্যাচ কোনও দলের পক্ষেই ভাল নয়। আর্দ্রতা, দেড় ঘণ্টার সফর করে যাতায়াত। ফলের ওপর এগুলোর সরাসরি প্রভাব পড়ে।”

রয় কৃষ্ণাই তাদের আক্রমণ বিভাগে প্রধান ভরসা। পাঁচটার মধ্যে চারটি গোলই দিয়েছেন রয়। মনবীর সিং একটি। এডু, ইনম্যানরা এখনও গোল পাননি। তবে এই নিয়ে খুব একটা চিন্তিত নন তাঁদের কোচ। হাবাস বললেন, “দলের খেলোয়াড়দের একসঙ্গে ও পরস্পরকে সাহায্য করে খেলতে হবে। এখন আমাদের অন্যান্য খেলোয়াড়দেরও আরও গোল করতে হবে। এর জন্য পরস্পরের সাহায্য প্রয়োজন। শুধু কৃষ্ণা ও মনবীর গোল পেয়েছে ঠিকই। কিন্তু এই নিয়ে আমি চিন্তিত নই।”

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here