কার্যকারিতা নয়, প্রথম হওয়া রাশিয়ার লক্ষ্যঃ জেন্স স্ফন

0
78

নিজস্ব সংবাদদাতা, ওয়েব ডেস্কঃ

রাশিয়ার তৈরি কোভিড ১৯ ভ্যাক্সিন যথেষ্ট পরিমাণে পরীক্ষিত নয়, হতে পারে মারাত্মক ক্ষতি, জার্মানির আশঙ্কা। জার্মানির স্বাস্থ্যমন্ত্রী জেন্স স্ফন কোভিড ১৯ নিয়ে বার্লিনের এক সম্মেলনে বলেন রাশিয়ার লক্ষ্য ছিল সর্বপ্রথম ভ্যাক্সিন নিয়ে আসা; সবচেয়ে কার্যকরী ভ্যাক্সিন নিয়ে আসা নয়। এই ভ্যাক্সিন যথেষ্ট পরীক্ষা নিরীক্ষা না করেই আনা হয়েছে, এর থেকে আদৌ কতটা ভালো হবে বা কতটা ক্ষতির সম্ভাবনা রয়েছে তা এখনো অজানা।

Jens Spahn | newsfront.co
জেন্স স্ফন , জার্মানির স্বাস্থ্যমন্ত্রী। ছবিঃ রয়টার্স

স্ফন আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন, যদি গণহারে এই ভ্যাক্সিন মানবদেহে প্রবেশ করে তার ফল হয়তো কোভিড-১৯ এর থেকেও ভয়ংকর হতে পারে, “আমি জানি না রাশিয়ার মানুষদের জন্য কি অপেক্ষা করছে।” স্ফন এর মতে, একটা প্যান্ডেমিক চলাকালে, যথেষ্ট ট্রায়াল ছাড়া , তার ফলাফল ছাড়া কোনো ভ্যাক্সিন বাজারে আনা , শুধুমাত্র ভ্যাক্সিন আবিষ্কারক হিসেবে প্রথম দেশ হওয়ার জন্য, ভয়াবহ আকার নিতে পারে।

আরও পড়ুনঃ কতটা নিরাপদ রাশিয়ার ভ্যাকসিন? পরীক্ষা করার কথা বললেন এইমস ডিরেক্টর

যদিও ভ্লাদিমির পুতিন জানিয়েছেন এই ভ্যাক্সিন মানবদেহে প্রয়োগের জন্য সম্পূর্ণ নিরাপদ, তাও অনেকের মতে মস্কো নাগরিক সুরক্ষার চেয়ে অনেক বেশি প্রাধান্য দিয়েছে রাশিয়াকে প্রথম ভ্যাক্সিন আবিষ্কারক দেশ হিসেবে প্রমান করতে। যদি কোনো সমস্যা পরবর্তী কালে তৈরি হয় সে ক্ষতি সামলানো কঠিন হবে।

জেন স্ফন বলেন, শুধুমাত্র ১০% ট্রায়ালের পরও একটি ভ্যাক্সিন সকলের উপর প্রয়োগ করা যথেষ্ট ঝুঁকিপূর্ণ। এর ফলে শুধু রাশিয়া ক্ষতিগ্রস্ত হবে এমনটা নয়।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here