তৃণমূল জমানায় ৯০ শতাংশ দুর্নীতিই নিয়ন্ত্রণে! সাফাই মুখ্যমন্ত্রীর

0
22

শুভম বন্দ্যোপাধ্যায়, কলকাতাঃ

আমফান পরবর্তী সময়ে দ্রুত ত্রাণ পাঠাতে গিয়ে সমস্যা হয়েছে বলে স্বীকার করে পক্ষান্তরে রাজ্যে শাসকদলের তৃণমূলের দুর্নীতির কথা স্বীকার করে নিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী। আর তারপরেই ঘরে বাইরে বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলির রাজনৈতিক সমালোচনার শিকার হতে হচ্ছে মুখ্যমন্ত্রীকে। সেই কারণে এবার ড্যামেজ কন্ট্রোল করতে শুরু করলেন তিনি। তিনি যে দুর্নীতি নিয়ন্ত্রণে সক্রিয়, বুধবার কলকাতা পুলিশের এক অনুষ্ঠানে সেই দাবি করলেন মুখ্যমন্ত্রী।

Mamata Banerjee | newsfront.co
ফাইল চিত্র

বুধবার কলকাতা পুলিশের পথ নিরাপত্তা সভায় এসে মুখ্যমন্ত্রী দাবি করলেন, পশ্চিমবঙ্গে এখনও দুর্নীতি চলছে সিপিএমের জন্যই। দল ছেড়ে এসে তৃণমূল জমানাতেও সেই অভ্যাস যায়নি অনেকের। পশ্চিমবঙ্গে ৯০ শতাংশ দুর্নীতি দূর করে দিয়েছেন তিনি। মাত্র ১০ শতাংশ দুর্নীতি রয়েছে তার দলে। আর ওইসব দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছে পুলিশ। দুর্নীতি নিয়ন্ত্রণে তিনি যে রং দেখেন না এদিন সেটাও পরিষ্কার করে দেন মুখ্যমন্ত্রী।

আরও পড়ুনঃ কর্মচারীদের বকেয়া ডিএ ইস্যুতে রাজ্য সরকারের আবেদন খারিজ করল স্যাট

এ দিন তিনি আরও বলেন, “কিছু বিক্ষিপ্ত ছোট ঘটনা নিয়ে রাজনীতি করার চেষ্টা করছে কোনও কোনও রাজনৈতিক দল। এ রাজ্যে দুর্নীতি সিপিএমের অবদান। একবারে সব চোর উৎখাত করা সম্ভব নয়। দলের ৭-৮ শতাংশ মানুষ এসব কাজ করছে। এদের সামলাতে আমাকে দিনরাত লড়াই করতে হচ্ছে। আর এদের জন্যই বাকি সকলের বদনাম হচ্ছে।

এদিন সিপিএমকে বিঁধে মুখ্যমন্ত্রীর প্রতিক্রিয়া, বাম আমলে ১০০ শতাংশ পঞ্চায়েতে চুরি হত। আমরা কিন্তু ৯০ শতাংশ পারলেও এখনও ১০০ শতাংশ পারিনি। তবে আস্তে আস্তে ১০০ শতাংশ পারবো। অন্য রাজ্যে গিয়ে দেখুন ৯০ শতাংশই দুর্নীতি। আমি আমার দলীয় নেতাকর্মীদেরও ছেড়ে কথা বলি না। সেই জন্যই আজ এখানে এসব কথা বললাম। মানুষের প্রাপ্য টাকা যেন কেউ না নেয়, এটাই আমার নির্দেশ। একমাত্র তৃণমূলেরই দুর্নীতিগ্রস্তদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের ক্ষমতা রয়েছে।”

আরও পড়ুনঃ আরজিকরে সদ্যোজাত নিখোঁজের মামলায় ডিএনএ রিপোর্ট তলব হাইকোর্টের

এছাড়াও কলকাতা পুলিশের অনুষ্ঠান মঞ্চ থেকে করোনা নিয়েও বক্তব্য রাখেন মমতা। মারণ ভাইরাস নিয়ে আতঙ্কিত না হয়ে সাবধানে থাকারই পরামর্শ দেন তিনি। বলেন, “‘কোভিড পরীক্ষার সংখ্যা বেড়েছে, তাই ধরাও পড়ছে। করোনা রুখতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখুন। করোনায় ভয় পাওয়ার কিছু নেই।যেখানে সেখানে ভিড় করবেন না।” কোভিডে আক্রান্তদের জন্য ১০ লক্ষ টাকা বিমার কথাও বলেন তিনি। এছাড়াও সুস্থ থাকতে চাইলে কোভিড বিধি সম্পূর্ণ মেনে চলার কথাও বলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

আয়ুষ্মান ভারত প্রকল্প নিয়ে এ দিন মমতা বলেন, “আমরা তো স্বাস্থ্যসাথী আগেই করেছি আয়ুষ্মান কেন করব। ৬০ শতাংশ টাকা দেবে রাজ্য আর চিঠি পাঠাবে ওরা, সেটা হয় না কি?” এ দিন বিজেপি ‘একুশের পর পগার পার হবে’ বলেও মন্তব্য করেন মমতা। সেভ ড্রাইভ সেভ লাইফ প্রচার প্রকল্পের জেরে কলকাতায় ৩৫ শতাংশ দুর্ঘটনা কমেছে বলেও বুধবার ওই অনুষ্ঠান থেকে দাবি করেন মুখ্যমন্ত্রী।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91-9593666485