পূর্বস্থলী এক নম্বর পঞ্চায়েত সমিতিতে কড়া নিরাপত্তায় মনোনয়নপত্র দাখিল তৃণমূলের

0
169

শ্যামল রায়, বর্ধমান:-

শুক্রবার ব্যাপক পুলিশি পাহারার মধ্যে দিয়ে পূর্বস্থলী এক নম্বর পঞ্চায়েত সমিতির পঞ্চায়েত নির্বাচনের মনোনয়নপত্র দাখিলের কাজ শেষ হলো।

নিরাপত্তা বেষ্টনী

এদিন জেলার উচ্চপদস্থ আধিকারিক কালনা মহকুমা শাসক, নিতীন সিঙহানিয়া, উন্নয়ন আধিকারিক পুষ্পেন চট্টোপাধ্যায়, নাদন ঘাট থানার পুলিশ আধিকারিক মিঠুন ঘোষ, পদাধিকারী ব্যাক্তিবর্গ দফায় দফায় মিটিং করেছেন এবং ঘটনাস্থলে সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত ছিলেন।
কারণ গত বুধবার মনোনয়নপত্র দাখিল কে কেন্দ্র করে বিজেপি তৃণমূল এর মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। সংঘর্ষের ঘটনায় উভয় পক্ষের দাবি তাদের দলীয় কর্মীরা মারাত্মকভাবে জখম ও আহত হয়েছেন।

তৃণমূল নেতাদের দাবি পরিকল্পিতভাবে বিজেপির কর্মী-সমর্থকরা শান্ত পরিবেশকে মনোনয়নপত্র দাখিল কে কেন্দ্র করে অশান্ত করে তোলে তৃণমূল কর্মীদের ব্যাপক মারধর করে। পাস থেকে ছয় জন মারাত্মকভাবে জখম হন তৃণমূল কর্মী সমর্থক।

অন্যদিকে বিজেপি নেতাদের অভিযোগ যে তৃণমূলের সন্ত্রাসের শিকার হয়েছেন তারা। বিজেপি দলের তরফ থেকে ভোটে মনোনয়নপত্র যাতে দাখিল করতে না পারে তার জন্য বাধা দেয় এবং ব্যাপক মারধর করে তৃণমূলের লোকজনেরা।

যদিও এই ধরনের অভিযোগ উড়িয়ে দিয়েছেন তৃণমূলের স্থানীয় নেতারা। স্থানীয় তৃণমূলের ব্লক কার্যকরী সভাপতি পরিমল দেবনাথ জানিয়েছেন যে ,“বিজেপির দলীয় কোন্দলের জেরে তারা প্রার্থী দিতে পারছে না । গুটিকয়েক লোক এনে তাদের দলীয় কর্মীদের ওপর হামলা চালায় । প্রচার করব এবং ভোটে জিতবো বলে দাবি করেছেন তিনি।”

বিজেপির পূর্বস্থলী এক নম্বর ব্লক সভাপতি জানিয়েছেন যে ,“শিরামপুর গ্রামে তৃণমূল রাজনীতি বসে আছে আমাদের যাতে কেউ প্রার্থী দিতে না পারে।”

শুক্রবারও বিজেপির তরফ থেকে কোন মনোনয়নপত্র দাখিল করেনি। অভিযোগ স্থানীয় পুলিশ প্রশাসন জেনেশুনেও চুপচাপ রয়েছে।

“বিষয়টি নির্বাচন আধিকারিকের কাছে জানিয়েছি আমরা নিরাপত্তা বন্দোবস্ত পেলেই প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করতে যাবে অন্যথায় আমরা গেলে আমাদের প্রাণে মরে যেতে হবে”– বলেই অভিযোগ বিধান ঘোষের। যদিও এই অভিযোগ মানতে নারাজ তৃণমূল নেতারা। তৃণমূল নেতাদের দাবি সব দলের তরফ থেকেই প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছে। একমাত্র বিজেপির অপপ্রচার আর সন্ত্রাস তৈরির পথ বেছে নেওয়ায় মানুষ প্রতিহত করছে। বিজেপি প্রার্থী খুঁজে না পেয়ে দোষ চাপাচ্ছে তৃণমূলের উপরে। পুলিশের তরফ থেকে এবং প্রশাসনিক আধিকারিকদের তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে শুক্রবার নির্বিঘ্নে মনোনয়নপত্র দাখিলের কাজ শেষ হয়েছে কোনো রকম অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here