ভারতে ‘রেস্ট্রিক্টেড’ সাংবাদিক রানা আয়ুবের টুইটার অ্যাকাউন্ট

0
38

নিজস্ব প্রতেবেদন, নিউজ ফ্রন্টঃ

রবিবার টুইটারের একটি নোটিশ-এর ছবি পোস্ট করেন সাংবাদিক রানা আয়ুব। নোটিশের ক্যাপশনে রানা টুইটার-কে ট্যাগ করে জানতে চান বিষয়টি ঠিক কি! নোটিশে বলা হয়েছে ভারতীয় তথ্য প্রযুক্তি আইন ২০২০-র অধীনে ভারতে রেস্ট্রিক্ট করা হচ্ছে তাঁর টুইটার অ্যাকাউন্ট।

রানা আয়ুব, ছবিঃ ফ্রি প্রেস জার্নাল 

কেন্দ্রীয় সরকার তথা বিজেপির কড়া সমালোচক বিশ্ব খ্যাত সাংবাদিক রানা আয়ুব। তিনি শুধু সাংবাদিক হিসেবেই বিখ্যাত এমনটা নয়, রানা একজন মানবাধিকার কর্মী ও পাশাপাশি একজন সমাজকর্মীও। এর আগেও বিভিন্নভাবে হয়রানির শিকার হতে হয়েছে তাঁকে। তাঁর এনজিও-র বিরুদ্ধে টাকা তছরুপের অভিযোগ আনা হয়, ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট আটকে দেওয়া হয়েছে তদন্তের কারণে। এমনকি তাঁর এক আন্তর্জাতিক এক সাংবাদিকদের সম্মেলনে যাওয়াও আটকানোর চেষ্টা করা হয় তদন্তের অজুহাতে।

তবে এইবার রানার টুইটার অ্যাকাউন্ট রেস্ট্রিক্ট করার পিছনেও অন্য অভিসন্ধি রয়েছে বলেই মত ওয়াকিবহাল মহলের। হজরত মহম্মদ-কে নিয়ে নূপুর শর্মার মন্তব্যের জেরে ইসলামিক দেশগুলির কড়া সমালোচনার মুখে পড়ে ভারত। সে পরিস্থিতিতে দল এবং দলীয় পদ থেকে নুপুরকে সাসপেন্ড করে বিজেপি। সেসময় রানা আয়ুব একটি টুইটে লেখেন, বিতর্ক ধামাচাপা দিতেই সরানো হয়েছে নূপুর শর্মা-কে। অনেকেই মনে করছেন সাম্প্রতিক এই টুইটের জেরেই ভারতে রেস্ট্রিক্ট করা হল রানার অ্যাকাউন্ট। তবে টুইটারের এই নোটিশে আন্তর্জাতিক মহলে ফের মুখ পুড়েছে ভারতের। রানার টুইটের কমেন্টে কিংবদন্তী টেনিস তারকা মার্টিনা নাভ্রাতিলোভা লিখেছেন ,”এরপরে কার পালা? অসহ্য….।“ গতকালই সমাজকর্মী তিস্তা শিতলবাদ-এর গ্রেপ্তারী প্রসঙ্গে রাষ্ট্রপুঞ্জের আধিকারিক মেরি ল’লর বলেন, “মানবাধিকার রক্ষা কখনোই অপরাধ হতে পারেনা। ঘৃণা ও বৈষম্যের বিরুদ্ধে তিস্তা এক শক্তিশালী কণ্ঠ।“

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here