র‍্যাম্প-ডাউন দশা শুরু সংস্থার, বিপুল কর্মী ছাঁটাই কগনিজ্যান্ট-এ

0
52

নিউজফ্রন্ট, ওয়েবডেস্কঃ

নতুন বছর, ২০২০-র শুরুটা সবার জন্য শুভ হলেও, তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থা ‘কগনিজ্যান্ট’-র কর্মীদের জন্য তা যে একেবারেই মধুময় নয়—সেটা তাঁরা ভালভাবেই বুঝে গিয়েছেন।

huge layoff of cognizant | newsfront.co
ফাইল চিত্র

জানা গিয়েছে, ছাঁটাই হতে চলেছেন কগনিজ্যান্ট-র প্রায় ৩০০ কর্মী। ‘ইকোনমিক টাইমস’ জানিয়েছে, যে সমস্ত কর্মীদের বার্ষিক বেতন ৮০ লক্ষ থেকে ১ কোটি ২০ লক্ষ টাকা, তাঁরা এই দফায় চাকরি থেকে বাদ পড়ছেন। প্রথম পর্যায়ে প্রায় ৩৫০ উচ্চপদস্থ কর্মচারীকে ছাঁটাই করবে সংস্থা।

আরও পড়ুনঃ মোদি-শাহ কে ‘পাগল’ বলে সম্বোধন সুব্রতর

আরও জানা গিয়েছে, এঁদের অধিকাংশই দেশের বাইরে কর্মরত এবং বয়স সীমা ৫০-৫৫ বছরের মধ্যে। ছাঁটাই প্রাপ্ত কর্মীদের নামের একটি তালিকা কোম্পানির সিইও ব্রায়ান হামফ্রিসের দফতরে জমা পড়েছে ইতিমধ্যেই।

চলতি বছরের নভেম্বরের দ্বিতীয় সপ্তাহে জাতীয় একটি গণমাধ্যমে প্রকাশিত প্রতিবেদনে হামফ্রিস বলেছিলেন, কগনিজ্যান্ট ‘এমপ্লয়ী পিরামিড’ সংশোধন করার চেষ্টা করছে যা অতীতে বিকৃত হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ শিলিগুড়িতে এনআরসি-সিএএ-র প্রতিবাদে তৃণমূলের মহামিছিল

ওই গণমাধ্যমে ছাঁটাই প্রসঙ্গে বিশেষজ্ঞরা জানিয়েছিলেন, স্ট্রিমলাইন কস্ট কমানোর জন্য কগনিজ্যান্ট অন্তত ১০,০০০ কর্মচারী ছাঁটাই করবেই, কাগজে কলমে যা প্রায় ১২,০০০।

পাশাপাশি প্রযুক্তি উন্নত হয়ে যাওয়ায় এখন বেশিরভাগ কাজই মেশিন বা সফটওয়্যার নির্ভর হয়ে গিয়েছে, সেক্ষেত্রে মার্কিন কোম্পানিগুলো লোকবল কমাতে বাধ্য হচ্ছে। পাশাপাশি ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে বড় কোম্পানিগুলির ভারি লভ্যাংশের টার্গেট পূরণে বাধা সৃষ্টি করছে।

বিশেষজ্ঞদের মতে, আইটি সেক্টরগুলিতে এরকম অর্থনৈতিক মন্দা বা বিপুল পরিমাণে ছাঁটাইয়ের প্রয়োজন ৫-৭ বছর পর পর ঘুরে ফিরে আসে। এই দশাটিকে বলে ‘র‍্যাম্প ডাউন’।

এদিকে জানা গিয়েছে, ফেসবুকের সঙ্গে কগনিজ্যান্ট-র যে কনটেন্ট মডারেশনের ব্যবসা চলত, সেই চুক্তির মেয়াদ ফুরিয়ে যাওয়ায় ব্যবসা বন্ধের সিদ্ধান্ত নিয়েছে কগনিজ্যান্ট।

ফলত পথে বসতে হচ্ছে প্রায় ৬০০০ কর্মীকে। সেই সঙ্গে সংস্থার উঁচু ও মাঝারি স্তরের আরও ৬০০০ কর্মীকে পর্যায়ক্রমে ছাঁটাই করা হবে বলে গত অক্টোবরে ইঙ্গিত দিয়েছিল মার্কিন তথ্যপ্রযুক্তি সংস্থা কগনিজ্যান্ট। এই ছাঁটাইয়ের ফলে ২০২১ এ তাদের ৫০০ মিলিয়ন ডলার সঞ্চয় করার একটা সম্ভাবনা থাকছে।

তবে জানা গেছে, ছাঁটাই প্রাপ্ত কর্মীদের মধ্যে প্রয়োজন অনুযায়ী ৫০০০ জনকে পুনরায় কাজে নিতে পারে সংস্থা।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91-9593666485