ট্রেনে কাটা পড়ে বন্যপ্রাণীর মৃত্যু রুখতে অভিনব আবিষ্কার ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ুয়ার

0
69

নিজস্ব সংবাদদাতা,আলিপুরদুয়ারঃ

special discovery of engineer | newsfront.co
নিজস্ব চিত্র

রেলের ধাক্কায় হাতির মৃত্যু ঠেকাতে অভিনব পদ্ধতি আবিষ্কার করলেন আলিপুরদুয়ারের ইঞ্জিনিয়ারিং পড়ুয়া দ্বীপাঞ্জন রায়।সে জলপাইগুড়ি সরকারি ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজের মেকানিকেল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের চতুর্থ বর্ষের ছাত্র।

আলিপুরদুয়ারের শহর লাগোয়া ঘাগরার হরতকিতলা এলাকার বাসিন্দা এই ছাত্র ‘থার্মাল ইনফারেড ভিসন এন্ড ডায়নামিক ইমেজ প্রসেজিং’ পদ্ধতি আবিষ্কার করেছেন। দ্বীপাঞ্জনের তৈরি করা এই পদ্ধতি নিয়ে ইতিমধ্যেই বিভিন্ন মহলে শোরগোল পড়েছে।

special discovery of engineer | newsfront.co
দিপাঞ্জন রায়।নিজস্ব চিত্র

এই পদ্ধতিতে রেল লাইন ও তার সংলগ্ন এলাকায় হাতি সহ অন্যান্য বন্য জন্তুর উপস্থিতি জানা যাবে।শুধু উপস্থিতিই নয় ট্রেনের চালককে বন্য জন্তুর উপস্থিতির জানান দিয়ে রেল চালক কোনভাবে কোন ব্যবস্থা গ্রহন করতে অপারক হলে স্বয়ংক্রিয়ভাবে রেলের ডায়নামিক ব্রেকের মাধ্যমে ট্রেন গাড়ি থামিয়ে দেওয়া সম্ভব হবে বলে দাবি করেছেন ওই ছাত্র।

special discovery of engineer | newsfront.co
নিজস্ব চিত্র

ছাত্র দ্বীপাঞ্জন রায় বলেন, “ মূলত থার্মাল ভিসন ক্যামেরা ও একটি অত্যাধুনিক প্রসেজিং ইউনিটের মাধ্যমে এই কাজ করা সম্ভব।এই ক্ষুদ্র ইউনিটটি পোর্টেবল।যা শিলিগুড়িতে কোন ট্রেনের ইঞ্জিনে লাগিয়ে দিলে আবার আলিপুরদুয়ার জংশন রেলস্টেশনে তা খুলে নেওয়া যাবে।

মুলত থার্মাল ভিসনের মাধ্যমে বন্য জন্তুর উপস্থিতি জানা ও সেই বিষয়ে ট্রেন চালককে সতর্ক করার উপায়।এটি অত্যন্ত কম খরচে করা যায়।এর সব থেকে গুরুত্বপূর্ন বিষয় ডায়নামিক ইমেজ প্রসেজিং ইউনিট যা আমি আবিষ্কার করেছি। এতে হাতি বা অন্যান্য বন্য জন্তুর উপস্থিতির বিস্তারিত জানা যাবে মিনিটের মধ্যে।

এটি পোর্টেবল হওয়ার কারনে তা সহজেই এক ট্রেন থেকে খুলে অন্য একটি ট্রেনে লাগানো যাবে।রেল,ফরেস্ট বা অন্য কোন সংস্থা আমাকে আর্থিক সাহায্য করলে তা আমি হাতে কলমে করে দেখাতে পারি। ”

বিষয়টি শুনে উত্তরপূর্ব সীমান্ত রেলের আলিপুরদুয়ার ডিভিশনের সিনিয়র ডিভিশনাল কমার্সিয়াল ম্যানেজার অমর মোহন ঠাকুর বলেন, “ এটিতো খুব খুশির খবর।

আমাদের সেফটি বিভাগ রয়েছে।সেই বিভাগে বিষয়টি নিয়ে ওই ছাত্র কথাবার্তা বললে আমরা বিষয়টি দেখতে পারি।তবে যদি সত্যিই ওই ছাত্রের আবিষ্কার করা পদ্ধতির বাস্তবভিত্তি থাকে তাহলে সেটি নিয়ে অবশ্যই ভাবনা চিন্তা করা যেতে পারে।”

উল্লেখ্য, ডুয়ার্সের বনাঞ্চলে ট্রেনে কাটা পড়ে হাতি মৃত্যুর একাধিক ঘটনা ঘটেছে।যা নিয়ে বিভিন্ন সময় রীতিমতো রেল ও ফরেস্ট বিভাগে তোলপাড় হয়েছে।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91-9593666485