সংহিতা দেব-এর দুটি কবিতা

0
596
সংহিতা দেব

হারিয়ে পাওয়া

মেয়েটা তখন সতেরো আর ছেলেটা ঊনিশ
ছেলের চাহনিতে ছিল সর্বনাশা বিষ…………

কাঁচা মেয়ের মনটা ছিল অবুঝ উরু উরু
জীবন খাতার নামতা পড়া সবেমাত্র শুরু।

প্রেমিক ছেলে নানা অছিলায় আবেগে উদ্বেগে
কারণ হাতরায় প্রেমিকার কি আপত্তি সোহাগে ?

নিজেকে হারিয়ে ব্যাকুল হৃদয় হন্যে হয়ে খোঁজে
মেয়ের চোখের ঈশারা সে একটুও কি বোঝে ?

হঠাৎ সেদিন কালো মেঘে শ্রাবণ এল ঝেঁপে
হারিয়ে গেল দুজন কোথায় বিধির অমোঘ কোপে।

বসন্ত বায় , হেমন্ত যায় , বৃষ্টি কতই ঝরে……।
অজানা ব্যথায় দুটি মেরুতে দুজনেরই মন পোড়ে।

দিন বয়ে যায় , রাত্রি কাটে , প্রহর গুলোও ঘোরে…
তেইশ বছর পরে হঠাৎ ফেবু – এরই মোড়ে…
দু-প্রান্তই শিহরিত হয়…..
বন্ধুত্বও ঘটে ……

তারপর থেকে রাতদিন কাটে ফেলে আসা সেই খাতে,
বকেয়া হিসেব মেলাতে গিয়ে ভাসে আবেগের স্রোতে…

সব পেয়ে আজ কি যেন নাই আজানা আশঙ্কায়
‘হারিয়ে পেলে’ও মন কাঁদে সেই তীব্র তাড়নায় …।

দুজন মিলে ভাবতে গিয়ে চমকায় মৃদু হেসে
আমিও আছি তুইও আছিস বন্ধুত্বও অবশেষে……

তবু আজ যেন ভাবনা গুলো বেসুরো বন্দিশ…।
মেয়েটা এখন চল্লিশ ….. আর ছেলেটা বিয়াল্লিশ…….

 

স্বপ্নালোক

আমার আপন-হারা প্রাণের বৃন্তে সর্বহারা তুমি
ভোরের রাতে তোমার স্বপ্নে এসেছিলাম আমি ।

স্বপ্নময়ী স্বপ্নমাখি স্বপ্নবুনি কতক
তুমিই ছিলে সবটা জুড়ে আমার স্বপ্ন-আলোক ।

তোমার আসা তোমার থাকা তোমার যাওয়ার মতই
সবটাই যেন বয়ে চলা প্রাচীর গড়ো যতই ……।

যতই ভাবি মনের অতলে বন্দী বানাবো তোমায়
ততই যেন বাণ এসে যায় ভাসিয়ে নেয় আমায় ।

উঠতে চেয়ে তল পাইনা আকাশও নেই সেথায়
শুধু তুমি আর তুমি শুধু আমার প্রতি পাতায়……।

তাই তো আজ হারি আমি ফুরিয়ে ফেলি সবই
আমায় ছুঁয়ে কবিতাগুলো লিখো কেবল কবি……।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here