কারফিউ চলাকালীন চিকিৎসা ব্যবস্থা পরিদর্শনে স্বাস্থ্য যুগ্মসচিব

0
31

প্রীতম সরকার, উত্তর দিনাজপুরঃ

নোভেল করোনা ভাইরাসকে সামনে রেখে ইসলামপুরে মহকুমা হাসপাতাল ও পুরসভার মাতৃমঙ্গল কেন্দ্র তৈরি করা হয়েছে। আইসোলেশন এবং কোয়ারেন্টাইনে সমস্ত প্রস্তুতি ঠিক রয়েছে। ইসলামপুর পুরসভা পরিচালিত মাতৃমঙ্গল কেন্দ্রে করোনা ভাইরাসের জন্য খুলে দেওয়া হলো আইসোলেশন সেন্টার।

matrimangal | newsfront.co
ইসলামপুর পুরসভা পরিচালিত মাতৃমঙ্গল। নিজস্ব চিত্র

জরুরী পরিস্থিতিতে আইসোলেশন সেন্টারে চিকিৎসকদের নজরদারিতে থাকতে পারবেন অনেকেই। ইসলামপুর পুরসভার চেয়ারম্যান কানাইলাল আগরওয়াল জানান, সেখানে মোট পনেরোটি বেড রাখা হয়েছে এবং আইসোলেশন সেন্টারের যেমন পরিকাঠামো দরকার তেমন ভাবেই সেটিকে সাজানো হয়েছে।

আরও পড়ুনঃ করোনা মোকাবিলায় জরুরী অ্যাম্বুলেন্স পরিষেবা চালু মাথাভাঙ্গায়

B.P.Gopalikar | newsfront.co
বি,পি, গোপালিকার সঙ্গে ইসলামপুর পুর চেয়ারম্যান কানাইলাল। নিজস্ব চিত্র

পাশাপাশি সেখানে মাতৃমঙ্গল কেন্দ্রের চিকিৎসকরাও সেই দায়িত্বে রয়েছেন বলে জানান তিনি।করোনা ভাইরাসের জেরে মানুষের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ছে এবং সন্দেহজনক রোগীর সংখ্যা যেভাবে বাড়ছে তাতে অবিলম্বে আইসোলেশন সেন্টার খোলার দাবি উঠেছিল ইসলামপুরে।

আরও পড়ুনঃ করোনার থাবা এবার অন্নপ্রাশনেও, মেয়ের অন্নপ্রাশনের অনুষ্টান বাতিল রায়গঞ্জের দম্পতির

রবিবার শহর জুড়ে কারফিউ চলাকালীন সামগ্রিক চিকিৎসা ব্যবস্থা পরিদর্শনে এসে এমনই জানালেন রাজ্য স্বাস্থ্য দপ্তরের যুগ্মসচিব বি.পি গোপালিকা। তিনি বলেন, এখানে কোয়ারেন্টাইনে কুড়িটি বেড আছে। রয়েছে আইসোলেশনের ব্যবস্থাও।

কোয়ারেন্টাইন প্রতিটি ব্লকে তৈরি হচ্ছে বলেও জানান তিনি। তবে যে থার্মাল গান দিয়ে জ্বর পরীক্ষা করা হচ্ছে তা এখনো পর্যাপ্ত নয়। তিনি বলেন, বিষয়টি রাজ্যকে জানানো হয়েছে। খুব শীঘ্রই থার্মাল গান চলে আসবে। স্ক্রিনিংয়ের বিষয়ে তিনি জানান, জেলাতে প্রায় বারো থেকে তেরো হাজার স্ক্রিনিংয়ের কাজ শেষ হয়েছে।

ইতিমধ্যেই শনিবার দক্ষিণ দিনাজপুর ও উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জে স্বাস্থ্য দফতরের আধিকারিকদের সঙ্গে একটি বৈঠক করেন তিনি। তারপরই ইসলামপুরে ছুটে আসেন মূল চিকিৎসা বিষয় খতিয়ে দেখতে। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে তিনি এদিন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করেন।

এদিন পরিদর্শনের সময় উপস্থিত ছিলেন ইসলামপুর পুরসভার চেয়ারম্যান কানাইলাল আগরওয়াল, ইসলামপুর পুলিশ জেলার পুলিশ সুপার শচীন মাক্কার তথা ইসলামপুর মহাকুমা হাসপাতালের সুপার নারায়ণ মিদ্যা প্রমুখ।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here