ভয়াবহ দাবানল ক্যালিফোর্নিয়ায়, ওয়াইন কারখানার বিরুদ্ধে তোপ ট্রাম্পের

0
36

নিজস্ব সংবাদদাতা, ওয়েব ডেস্কঃ

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়ায় ভয়াবহ দাবানল। এই দাবানালে অন্তত ৬ জন নিহত আহত প্রায় ৪৩ জন। এমন বিধ্বংসী দাবানলের সম্মুখীন বহু বছরে হয়নি ক্যালিফোর্নিয়া, জানাচ্ছেন গভর্নর গেভিন নিউসম। অসংখ্য গাছ এবং বাড়ি পুড়ে গেছে, আরও অনেক দাঁড়িয়ে আছে বিপদের মুখে।

California fire | newsfront.co
ক্যালিফোর্নিয়ার ওয়াইন উৎপাদনকারী অঞ্চলে জ্বলছে আগুন। চিত্রঃ বিবিসি

১২ হাজার দমকল কর্মী লড়াই চালাচ্ছেন, তাঁদের মধ্যে ৬ জনের প্রাণ নিয়েছে দাবানল। ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যের ইতিহাসে সর্ববৃহৎ দাবানল বলে মনে হচ্ছে। গত দুই দশকের মধ্যে ক্যালিফোর্নিয়াতে সবচেয়ে ভয়াবহ দাবদাহ চলছে এবং গ্রীষ্মকালীন বজ্রপাত থেকে এই অগ্নিকান্ডের সূচনা বলে মনে করা হচ্ছে।

California | newsfront.co
সিজেডইউ লাইটনিং কমপ্লেক্সের অগ্নিকাণ্ডে ক্যালিফোর্নিয়ার ডেভেনপোর্টে বাড়িঘর ধ্বংস হয়ে গেছে। চিত্রঃ বিবিসি

অন্যান্য মার্কিন রাজ্য সাহায্য করলেও পরিস্থিতি বাগে আনতে তা যথেষ্ট নয়, গভর্নর সাহায্য চেয়েছেন অস্ট্রেলিয়া ও কানাডার কাছে। অপৎকালীন পরিষেবা কর্মীরা জানাচ্ছেন কিছু কিছু আগুনের আকৃতি বেড়ে দ্বিগুন হয়েছে, দুটি আগুন দেশের দাবানলের ইতিহাসে সপ্তম এবং দশম।

wildfire | newsfront.co
বেনামে স্টেট পার্কের কাছে প্রজ্জ্বলিত বিশ্বের দীর্ঘতম গাছ রেডউডস। চিত্রঃ বিবিসি

১,৭৫,০০০ শহরবাসীকে জরুরি ভিত্তিতে সরে যেতে হয়েছে বাসস্থান ছেড়ে। গভর্নর নিউসম জানান তিনি রাষ্ট্রপতিকে অনুরোধ জানিয়েছেন জাতীয় বিপর্যয় ঘোষণার জন্য।

আরও পড়ুনঃ এশিয়া মহাদেশের সবথেকে দুর্নীতি প্রবণ দেশ ভারত: সমীক্ষা

সিজেডইউ লাইটনিং কমপ্লেক্স ফায়ারে ডেভেনপোর্ট ও ক্যালিফোর্ণিয়াতে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বহু বাড়ি। সব থেকে খারাপ অবস্থা সানফ্রান্সিস্কোর পূর্ব ও দক্ষিণে পাহাড়ি অঞ্চলে। দমকল-কর্মী সহ অন্তত ৪৩ জন গুরুতর আহত, একশোর ওপর বাড়ি ভস্মীভূত।

তারমধ্যেই সেখানে অ্যাকটিভ করোনা ভাইরাস রুগীর সংখ্যা ৬,৫০,০০০ এর ওপর, স্বাভাবিক ভাবেই যাদের সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে শেল্টারে তারাও ভয় পাচ্ছেন করোনার।

আরও পড়ুনঃ তীব্র পুতিন সমালোচক নাভালনি কোমায়, বিষ প্রয়োগের অভিযোগ

ক্যালিফোর্নিয়ার বিখ্যাত ওয়াইনারি যে অঞ্চলে সেটি সম্পূর্ণ ভস্মীভূত, এর মধ্যেই প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এই ওয়াইন তৈরির কারখানাগুলোর ওপরেই দায় চাপিয়েছেন এবং তাদের যুক্তরাষ্ট্রীয় ফান্ডিং বন্ধ করে দেওয়ার হুমকি দিয়ে রেখেছেন।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অন্যান্য রাজ্য যেমন অরিগান, টেক্সাস, মেক্সিকো থেকে সাহায্যের জন্য দমকল কর্মী, ফায়ার ব্রিগেড ইঞ্জিন , আকাশপথে নজরদারির জন্য প্লেন পাঠানো হয়েছে ক্যালিফোর্নিয়াতে। তবে সবথেকে দক্ষ ও সুশিক্ষিত দমকলকর্মী রয়েছে অস্ট্রেলিয়া ও কানাডার, তাই তাদের থেকে সাহায্য চেয়েছে ক্যালিফোর্নিয়া।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here