দলনেত্রীর সাথে দেখা করার দাবিতে তৃণমূল সদর কার্যালয়ে সামনে ধরনা কর্মীদের

0
13

উজ্জ্বল দত্ত, কলকাতাঃ

নেত্রীর সঙ্গে দেখা করার দাবি এবং একাধিক অভিযোগ নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসর প্রধান কার্যালয় তৃণমূল ভবনের সামনে ধরনায় বসলেন জেলার তৃণমূল কর্মীরা। এরকম নজিরবিহীন ঘটনার সাক্ষী থাকল কলকাতা। এরকম ঘটনা আগে কখনও ঘটেনি বলে মনে করছে রাজনৈতিক মহল।

TMC strike | newsfront.co
তৃণমূল ভবনের সামনে কর্মীদের ধরনা। নিজস্ব চিত্র

তৃণমূলের দলীয় পতাকা, গলায় প্ল্যাকার্ড ঝুলিয়ে চলে তাঁদের কর্মসূচি। কী অভিযোগ তাঁদের? তা সংবাদ মাধ্যম বা তৃণমূলের নেতা-মন্ত্রীদের কাছে প্রথমে বলতেও নারাজ ছিলেন তাঁরা। তাঁদের দাবি ছিল, তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ছাড়া কারোর কাছে জানাবেন না সেই অভিযোগ।

বস্তুত, দলের সদর কার্যালয়ের সামনে দলীয় কর্মীদের অবস্থান-বিক্ষোভের ঘটনা অদূর অতীতে দেখা যায়নি।আজ সকাল থেকে রাজ্যের তেইশটি জেলার প্রায় আড়াই-শো জন তৃণমূল কর্মী দলের সদর কার্যালয়ের মূল প্রবেশ পথে বসে অবস্থান করেন। গোটা বিষয়টি নিয়ে রীতিমতো অস্বস্তিতে পড়ে তৃণমূল কংগ্রেসের শীর্ষ নেতৃত্ব।

আরও পড়ুনঃ হাতির হানায় মৃত ৪৩৪ জনকে বিজ্ঞপ্তি জারি করে নিয়োগ শুরু নবান্নের

অবস্থান বিক্ষোভ চলাকালীন তৃণমূল ভবনে উপস্থিত ছিলেন দলের অন্যতম মুখপাত্র তথা রাজ্যসভার সাংসদ ডেরেক ও’ব্রায়েন এবং বারাসতের সংসদ কাকলি ঘোষ দস্তিদার। প্রায় পাঁচ ঘণ্টা চলে অবস্থান বিক্ষোভ। অবস্থানরত কর্মীদের চেষ্টা করেও ওঠাতে পারেনি পুলিশ। তখনও পর্যন্ত নিজেদের দাবিতে অনড়।

আরও পড়ুনঃ ডিসেম্বরের শুরুতে কলকাতায় শুরু হতে চলেছে চূড়ান্ত পর্যায়ে করোনা ভ্যাকসিনের ট্রায়াল

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে দেখা না করে উঠবেন না তাঁরা। বেলা তিনটে নাগাদ রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সির উদ্যোগে বরফ গলে। অবশেষে প্রথম সারির নেতৃত্বের তরফে আশ্বাস পাওয়ার পরই অবস্থান তোলেন আন্দোলনকারীরা।

জানা গিয়েছে, মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নয়, আগামী বৃহস্পতিবার সুব্রত বক্সির সঙ্গে দেখা করবেন তাঁরা। জানাবেন তাঁদের সমস্যা কথা।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91-9593666485