পশ্চিম মেদিনীপুরের তিলাবনী গ্রামে অজানা পশুর পায়ের ছাপে আতঙ্ক

0
22

নিজস্ব সংবাদদাতা, পশ্চিম মেদিনীপুরঃ

প্রায় দুই বছরের মাথায় ফের পশ্চিম মেদিনীপুরে ফিরে এল অজানা পশুর পায়ের ছাপের আতঙ্ক। বাঘঘোড়া জঙ্গল লাগোয়া তিলাবনী গ্রামে ফের মিললো পায়ের ছাপ। আতঙ্কে রাতের ঘুম উড়েছে গ্রামবাসীদের। রবিবার বিকেলে জঙ্গল লাগোয়া গ্রামের রাস্তায় হঠাৎ অজানা জন্তু দেখতে পায় বেশ কয়েকজন গ্রামবাসী।

Foot Print | newsfront.co
পায়ের ছাপ। নিজস্ব চিত্র

এরপরই গ্রামের রাস্তায় মেলে বেশ কয়েকটি পায়ের ছাপ। মুহুর্তে বাঘের আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে গোটা এলাকায়। যদিও এই পায়ের ছাপ বাঘের বলে মানতে নারাজ বনদফতর। বনদফতরের কর্তাদের দাবি, এটি হুড়াল জাতীয় কোন প্রাণীর পায়ের ছাপ। তবে গ্রামে যে আতঙ্ক রয়েছে তা মেনে নিয়েছে পিড়াকাঠার রেঞ্জার।

Foot prints | newsfront.co
নিজস্ব চিত্র

সোমবার সকালে তিলাবনী গ্রামে তিল ধারনেরও জায়গা ছিল না। উত্তেজিত গ্রামবাসীরা ছাড়াও, আশেপাশের গ্রামের উৎসাহী লোকজন, সংবাদমাধ্যমের কর্মীরা এবং বন্যপ্রাণী বিশারদ থেকে শুরু করে পরিবেশ কর্মীরা পৌঁছে গিয়েছিলেন ওই গ্রামে।

আরও পড়ুনঃ পুকুর কাটতেই বেরিয়ে এল হাজার বছরের পুরনো মূর্তি

jungle | newsfront.co
নিজস্ব চিত্র

কিন্তু, আপাতত সকলের আশঙ্কা ও উত্তেজনায় জল ঢেলে দিয়ে বনদফতর ও বন্যপ্রাণী বিশারদ’রা জানিয়েছেন ওটি আসলে নেকড়ে (ভারতীয় ধূসর নেকড়ে)। পিড়াকাটার রেঞ্জ অফিসার পাপন মোহান্ত জানালেন, “ওই পায়ের ছাপ আসলে নেকড়ের। সাধারণত নেকড়ের পায়ের ছাপ একটু কোনাকুনি আকারের হয়। পায়ের আকারও বাঘের তুলনায় ছোট।”

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here