মুর্শিদাবাদে সাংবাদিককে আটকে রেখে ২ ঘন্টা ধরে মারধর- নির্যাতনের অভিযোগ

0
34

নিজস্ব সংবাদদাতা, মুর্শিদাবাদঃ

দুর্নীতির খবর করায় শাসকদলের নেতাদের হাতে নির্যাতনের শিকার এক সাংবাদিক। তিনি মুর্শিদাবাদ জেলার ডোমকল মহকুমার অন্তর্গত সাগরপাড়া থানার ইমাজিন টিভির সাংবাদিক সুব্রত প্রামাণিক। সোমবার ঘটনাটি ঘটেছে সাগরপাড়া থানার পোল্লাগাড়ি এলাকায়।

Journalist
নিগৃহীত ওই সাংবাদিক। নিজস্ব চিত্র

জানা যায়, গত সোমবার সকাল ১১ টায় সাগরপাড়া থানার বামনাবাদ পোল্লাগাড়ি এলাকায় স্থানীয় বাসিন্দারা তৃণমূল মেম্বারের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ দেখান। সেই খবর সংগ্রহ করতে গিয়েছিলেন সুব্রত। ছবি তোলার সময় স্থানীয় তৃণমূল নেতা সহ তার সঙ্গীরা তাকে ছবি তুলতে বাধা দেয়। এমনকি তাকে দেখে নেওয়ার হুমকিও দেওয়া হয়।

সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টায় নাগাদ ওই সাংবাদিক’কে ফোন করে ডেকে পাঠানো হয় তৃণমূল মেম্বারের বাড়িতে। তাদের কথা মত দেবিপুর জিপির পোল্লাগাড়ি অঞ্চলের পঞ্চায়েত সদস্য জাব্বার সেখের বাড়িতে গিয়েছিলেন সাংবাদিক সুব্রত। সেখানে উপস্থিত ছিলেন জলঙ্গি উত্তর জোনের কনভেনর মতিউর রহমাম (ডলার), পঞ্চায়েত সদস্য জাব্বার সেখ, আজিত সেখ সহ ১৭-১৮ জন।

আরও পড়ুনঃ শান্তনু সেনের পর সাসপেন্ড তৃণমূলের আরও ৬ সাংসদ

অভিযোগ, প্রথমেই সাংবাদিকের মোবাইলটি তারা কেড়ে নেয়। তারপরই তারা ব্যাপক মারধর শুরু করেন। দফায় দফায় তাকে মারধর চলে। প্রায় ২ ঘন্টা ধরে শারীরিক নিগৃহ ও মানসিক অত্যাচার করা হয়। পরে ওই সাংবাদিকে জোরপূর্বক “টাকার বিনিময়ে খবর করেছি” এই মর্মে একটি ভিডিও করিয়ে নেওয়া হয়। পরে সেটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল করা হয়। শারীরিক অসুস্থ অবস্থায় বর্তমানে ডোমকল মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে সুব্রত প্রামাণিক।

যদিও এই ঘটনা নিয়ে ডোমকল মহকুমার সাংবাদিকরা সাগরপাড়া থানায় অভিযোগ করতে গেলে তারা টালবাহানা করেন। পরে থানা অভিযোগ নিয়ে স্বীকার করে এবং রিসিভ কপিও দেয়।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here