ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে হামালাকারীর ভারত যোগ রয়্যাল কমিশনের রিপোর্টে

0
49

নিজস্ব সংবাদদাতা, ওয়েব ডেস্কঃ

নিউজিল্যান্ডের ক্রাইস্টচার্চে মসজিদে গত বছর নির্মম হামলা চালিয়ে ৫১ জনকে হত্যা করে ব্রেন্টন ট্যারেন্ট। জানা গিয়েছে, হামলার আগে সে ভারতেও এসেছিল! এবং এখানে এসে তিন মাস থেকেও ছিল সে। তারপর নিউজিল্যান্ডে গিয়ে এমন নৃশংস হত্যাকান্ড ঘটায়।

Brenton Tarrant | newsfront.co
ব্রেন্টন ট্যারেন্ট

এমনই রিপোর্ট প্রকাশিত হয়েছে মঙ্গলবার। গত বছর মার্চের সেই নৃশংস ঘটনায় নিহত ৫১ জনের মধ্যে ৫ জন ভারতীয়ও ছিলেন। নিউজিল্যান্ডের মতো শান্তিপূর্ণ দেশে এমন নারকীয় কাণ্ড নাড়িয়ে দিয়েছিল গোটা বিশ্বকে।

রয়্যাল কমিশনের ৭৯২ পাতার রিপোর্টে প্রকাশিত, স্কুলের পড়াশোনা শেষ হওয়ার পর বছর তিরিশের ব্রেন্টন ২০১২ সাল পর্যন্ত একটি জিমে ট্রেনারের কাজ করত। কিন্তু চোট পেয়ে সেই কাজ ছেড়ে দেয় সে। তারপর থেকে কোনওদিন কোথাও কাজ করেনি সে, বাবার কাছ থেকে পাওয়া টাকায় জীবনযাপন করত ব্রেন্টন।

আরও পড়ুনঃ এভারেস্টের নতুন উচ্চতা কত হল?

বাবার টাকাতেই বিশ্বের একাধিক দেশে ঘুরেছে সে। ২০১৩ সালে নিউজিল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ায় ঘোরার পর ২০১৪ থেকে ২০১৭ সালের মধ্যে বহু দেশে ঘোরে সে। সে তালিকায় উত্তর কোরিয়াও ছিল বলে জানিয়েছে রয়্যাল কমিশন।

আরও পড়ুনঃ বিশ্বে প্রথম মহিলা হিসাবে করোনা টিকা নিলেন ব্রিটিশ মার্গারেট

এই রিপোর্টে থেকে আরও জানা গিয়েছে, বিভিন্ন দেশের মধ্যে একমাত্র ভারতেই সবচেয়ে বেশি সময় কাটিয়েছে ব্রেন্টন, তার এদেশে থাকার মেয়াদ ছিল প্রায় তিন মাস। চিন, জাপান, রাশিয়া, দক্ষিণ কোরিয়াতে এক মাসের মতো করে কাটিয়েছে সে।

কিন্তু এই তিন মাস ভারতে সে কোথায় কোথায় গিয়েছে বা কী করেছে সে সম্পর্কে কোনও স্পষ্ট তথ্য দিতে পারেনি রয়্যাল কমিশন। এমনকী যেসব জায়গায় সে গিয়েছিল সেখানে কোনও মৌলবাদী সংগঠনের সঙ্গে সাক্ষাৎ, ট্রেনিং বা অন্য কোনও বিষয়ে কোনও তথ্য বা প্রমাণ মেলেনি বলে জানা গিয়েছে তদন্তে।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here