সাহিত্যে এবছর নোবেল বাদ যৌন কেলেঙ্কারির অভিযোগে

0
259

ওয়েবডেস্কঃ-

যৌন কেলেঙ্কারি এবং আর্থিক দুর্নীতির অভিযোগ তদন্ত নিয়ে বেকায়দায় থাকা সুইডিশ অ্যাকাডেমি
এই বছর সাহিত্যে নোবেল না দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে শুক্রবার অ্যাকাডেমি সূত্রে জানা গেছে। তবে আগামী বছর এই পুরস্কার দুবার দেয়া হতে পারে বলেও জানানো হয়।

এন্ডার্স ওলসন বর্তমান প্রধান ,সুইডিশ অ্যাকাডেমি(ছবি-রয়টার্স)

অ্যাকাডেমি অ্যাক্টিং সেক্রেটারি এন্ডার্স ওলসন মিডিয়াকে জানান যে, সাহিত্যে নোবেল না দেয়া এবারই প্রথম নয়। এর আগে এমন পাঁচ বার ঘটেছে। উল্লেখ্য, শেষবারের মত যে বছর সাহিত্যে নোবেল দেওয়া হয়নি সেটা ছিল ১৯৪৩ সাল দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময়।

জানা গেছে, যৌন কেলেঙ্কারিকে কেন্দ্র করে অ্যাকাডেমির নির্বাচকদের গণপদত্যাগের কারণে এবার নোবেল পুরস্কারের জন্য কাউকে নির্বাচন করা যাচ্ছে না।

অভিযুক্ত ক্যাটারিনা ফ্রস্টটনসনের স্বামী জিন–ক্লদ আর্নল্ট ও ফ্রস্টটনসন (ছবি-www.dagbladet)

নারী নিগ্রহের বিরুদ্ধে  ‘মি টু’ ক্যাম্পেইনের পরপরই প্রায় ১৮ জন নারী অ্যাকাডেমিরই এক সদস্যের স্বামীর ওপর যৌন কেচ্ছার অভিযোগ আনেশুধু তাই নয় অ্যাকাডেমির আনুষ্ঠানিক ঘোষণার আগেই তিনি বেশ কিছু বিজয়ীর নাম প্রকাশ্যেও আনেন। যাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ তিনি হলেন অ্যাকাডেমির সক্রিয় সদস্য এবং লেখিকা ক্যাটারিনা ফ্রস্টটনসনের স্বামী তথা আলোকচিত্র শিল্পী জিন–ক্লদ আর্নল্ট। এই ঘটনার পর সৃষ্ট বিতর্কের সূত্র ধরে অ্যাকাডেমির সেক্রেটারি ও তার স্ত্রীসহ মোট ছয় জন নির্বাচক কমিটি থেকে পদত্যাগ করেন।

সুইডিশ অ্যাকাডেমির বাইরে বিক্ষোভ (ছবি-রয়টার্স)

নিয়ম আনুযায়ী সাহিত্যে নোবেল দেয়ার জন্য কাউকে নির্বাচিত করতে হলে অ্যাকাডেমির ১৮ জন নির্বাচকের সম্মতি লাগে। এর মধ্যে ১২ জনের ভোট আবশ্যক। কিন্তু এর আগে ১৯৮৯ এবং ২০১৫ সালে দুই জন পদত্যাগ করার পর এবার ছয় জন পদত্যাগ করায় আবশ্যকীয় সংখ্যাটি পূরণ হচ্ছে না।তাই বাধ্য হয়েই এবছর সাহিত্যে নোবেল না দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সুইডিশ অ্যাকাডেমি।

(FEATURE PHOTO: FREDRIK SANDBERG/ASSOCIATED PRESS)

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here