গণতন্ত্র ও ভোটের প্রচারে অনন্য বাউল শিল্পী

0
20

রাহুল রায়,পূর্ব বর্ধমানঃ

Baul artist on vote promotion
নিজস্ব চিত্র

নিজের ভোট নিজে দাও বাউল গানে নিঃস্বার্থ সচেতনতা প্রচারে স্বপন দত্ত বাউল।২০১৬ নির্বাচন ও পৌরসভা এবং পঞ্চায়েত নির্বাচনের ভোট প্রচার এর মত এবারও ২০১৯ এ লোকসভা নির্বাচন নিয়ে বাউল গানে পথে নামলেন পূর্ব বর্ধমান জেলায় গ্রামগঞ্জ শহরের।খাজা আনোয়ার বেড় পূর্ব বর্ধমানের এই স্বপন দত্ত বাউল একজন আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন শিল্পী তিনি কেন্দ্র ও রাজ্যনির্বাচন কমিশন ও বর্ধমান জেলা নির্বাচন দপ্তরের সম্মানীত শিল্পী হয়ে কাটোয়া মহকুমায় ও কালনা মহকুমায় পথে পথে রেল স্টেশনে,বাসস্ট্যান্ডে,ফেরিঘাটে,এস ডি ও অফিস চত্বর,কোর্ট চত্বর ,গুরুত্বপূর্ণ জমজমাট জনবহুল জায়গা, এমনকি সাধারণ মানুষের মাঝে ও কালনায় নির্বাচনী অফিসারদের সঙ্গে নিয়ে এ ইভিএম ভোট দেওয়া মেশিন সহ বুথে বুথে মানুষকে কি ভাবে ভোট দিতে হবে,তা বাউল গানে গানে বলেন এবং নিজের ভোট নিজে দিন,ভোট নষ্ট করবেন না।অবাধ পক্ষপাতহীন ভোটে কেউ ভেদাভেদ করবেন না শান্তিপূর্ণ ভোটের অঙ্গীকার করো সবে কেউ শান্তিভঙ্গ কোরো না। নির্ভয়ে সকাল সকাল ভোট দিন। ধর্ম জাতি বর্ন নিয়ে কোন ভেদাভেদ কোরো না।কেউ গোষ্ঠীর প্রলভনে পড়ো না এই রকম নানা কথায় গান বেঁধে ও সুর করে কাটোয়া মহকুমায় ও কালনা মহকুমায় বাউল গানে ও ভোট নিয়ে মূল্যবান বক্তব্য রেখে মানুষকে বোঝালেন।নিঃস্বার্থ ভাবে বিনা পারিশ্রমিকে দেশের গণতন্ত্রকে রক্ষা করার জন্য এমন নিঃস্বার্থ বাউল শিল্পীকে সকল মানুষ ও কালনায় ১ নম্বরের বিডিও পার্থ বন্দ্যোপাধ্যায় ও ধাত্রীগ্রামের ভারপ্রাপ্ত নির্বাচন দপ্তরের অফিসার দীপক সাতরা মহাশয় সাধুবাদ জানিয়েছেন।স্বপন বাবু রাজ্যের অন্য জেলাগুলিতেও যত গুলি পারবেন নিজের সামর্থ্যতে ভোট প্রচারে যাবেন বলে জানান।

আরও পড়ুনঃ ভোট প্রচারে সোস্যাল মিডিয়ার ব্যবহারে জোর কর্মীসভায়

যেহেতু তিনি কেন্দ্র রাজ্যের নির্বাচন কমিশনের সম্মানীত শিল্পী তাই তারও দেশের গণতন্ত্রকে রক্ষা করার অনেক দায়িত্ব আছে বলে তিনি জানান ।অনেকেই বলেন এমন নিঃস্বার্থ সমাজ সচেতনের শিল্পী বাংলায় জুড়ি মেলা ভার।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91-9593666485