পার্ক বাঁচাতে বিজেপি সাংসদকে চিঠি তৃণমূল কাউন্সিলরের

0
72

সুদীপ পাল,বর্ধমানঃ

দুর্গাপুর ডিএসপি টাউনশিপের কুমারমঙ্গলম পার্কের লেক শুকিয়ে গিয়েছে।পরিকাঠামোগত উন্নয়নের জন্যই দুর্গাপুর পুরসভার ৪৩ নম্বর ওয়ার্ডের তৃণমূল কাউন্সিলর চন্দ্রশেখর বন্দ্যোপাধ্যায় বর্ধমান দুর্গাপুর এর নবনির্বাচিত সাংসদ সুরেন্দ্র সিংহ আহ্লুয়ালিয়ার কাছে চিঠি লিখলেন।

letter of tmc councilor to the BJP MP to save the park
যে পার্ক চিঠির বিষয়।ছবিঃপ্রতিবেদক

আটের দশকের মাঝামাঝি দুর্গাপুর স্টিল প্ল্যান্ট অর্থাৎ ডিসপি এই পার্কটি তৈরি করে।দেশের প্রথম ইস্পাত মন্ত্রী নামে মোহন কুমারমঙ্গলমের নামে পার্কের নামকরণ করা হয়।আর্থিক সংকটের ডিএসপি ১৯৯৪ সালে বন্ধ করে দেয় পার্কটি। পরে একটি বেসরকারি সংস্থাকে পার্কের দায়িত্ব দেওয়া হয়।এখন সেই সংস্থার মেয়াদ শেষ হয়েছে। কিন্তু দু’পক্ষের মধ্যে বিবাদ গড়িয়েছে আদালতে। ফলে ঢিলেমি পড়েছে পার্কের রক্ষণাবেক্ষণে। পার্কের মাঝে রয়েছে বিশাল লেক। বছর ভর সেখানে জল থাকে কিন্তু বর্তমানে লেকে কোন জল নেই। রোদের তাপে ফুটিফাটা হয়ে গিয়েছে মাটি। লেকে জল থাকলে পার্কে ঠান্ডা হাওয়া দেয় এবং দীর্ঘক্ষন চেয়ারে বসে থাকা যায় বলে মন্তব্য করছেন শহরের বাসিন্দারা। যদিও বেসরকারি সংস্থাটির পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে পার্কের গাছ বাঁচাতে জল কিনে এনে সেচ দিতে হচ্ছে। এরকম অবস্থা কি করে মোকাবিলা করা যায় সেই উদ্দেশ্যে চিঠি লিখেছেন তৃণমূল নেতা।

যদিও এর মধ্যে অনেকেই রাজনীতি দেখছেন। বলা হচ্ছে, তৃণমূলের জেলা সভাপতি জিতেন্দ্র তিওয়ারি মানুষকে সেবা প্রদানের ক্ষেত্রটিতে চাপ সৃষ্টি করতে চাইছে বিজেপির উপর। সেই উদ্দেশ্যেই এই চিঠি। যদিও চন্দ্রশেখরবাবুর বক্তব্য, কেন্দ্রীয় সরকারের সংস্থার সম্পত্তি।

আরও পড়ুনঃ ভোট পরবর্তী হিংসা,চিঠি প্রধানমন্ত্রীকে

রাজ্য সরকারের কিছু করার নেই। তাই সাংসদের কাছে আর্জি জানানো হয়েছে। শহরবাসী অবশ্য রাজনৈতিক বাকবিতণ্ডায় যেতে চাইছেন না। তাঁদের বক্তব্য, পার্কের মধ্যে প্রাণ ফিরে পাক লেক।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here