জনজাতীয় গৌরব দিবস উদযাপন উপলক্ষ্যে আয়োজিত তিনদিনের অনুষ্ঠান শেষ হলো

0
14

নিজস্ব সংবাদদাতা মেদিনীপুর: 

স্বাধীনতা সংগ্রামী, মুন্ডা বিদ্রোহ “উলগুলান” এর নেতা ‘ধরতী আবা’ বিরসা মুন্ডার জন্মদিনকে সামনে রেখে ভারত সরকারের তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রকের সেন্ট্রাল ব্যুরো অফ কমিউনিকেশন এর মেদিনীপুর ফিল্ড অফিসের উদ্যোগে এবং শালবনী ব্লকের মৌপাল দেশপ্রাণ বিদ্যাপীঠের সহযোগিতায় মৌপাল স্কুলে অনুষ্ঠিত হলো তিন দিনের ‘জনজাতীয় গৌরব দিবস’। মঙ্গলবার ১৫ ই নভেম্বর বিরসা মুন্ডার জন্মদিনে বিরসা মুন্ডার প্রতিকৃতিতে মাল্যদান চারাগাছে জল ঢেলে উৎসবের আনুষ্ঠানিক সূচনা করেন ফিল্ড অফিসার সুদীপ্ত বিশ্বাস। অনুষ্ঠানে সবাইকে স্বাগত জানান মৌপাল দেশপ্রাণ বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক ড.প্রসূন কুমার পড়িয়া।এই উপলক্ষ্যে অনুষ্ঠিত হলো নানা কর্মসূচি। অনুষ্ঠিত হলো চারদলীয় মহিলা ফুটবল প্রতিযোগিতা ও বসে আঁকো প্রতিযোগিতা, তিরন্দাজি প্রতিযোগিতা, প্রদর্শনী, আলোচনা সভা, সচেতনতা শিবির, কুইজ ও বর্ণময় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ।
পাশাপাশি দৃষ্টিনন্দন মঞ্চে অনুষ্ঠিত হয় ম্যাজিক, নাটক ও সঙ্গীতানুষ্ঠান সহ অন্যান্য কর্মসূচি। ফুটবল প্রতিযোগিতার প্রথম ম্যাচে ভাদুতলা বিবেকানন্দ হাইস্কুলকে হারিয়ে ফাইনালে ওঠে পিড়াকাটা হাইস্কুলের ছাত্রীরা। মধ্যে ।অন্যম্যাচে গৌতম স্মৃতি সাতপাটি বীণাপানী বিদ্যামন্দিরকে হারিয়ে ফাইনালে যায় মৌপাল দেশপ্রাণ বিদ্যাপীঠের ছাত্রীরা। ফাইনালে পিড়াকাটাকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হয় মৌপাল স্কুল। মূল অনুষ্ঠানের সূচনা পর্বে আদিবাসী রীতি অনুযায়ী অতিথি বরণ, ‘ধরতী আবা’ বিরসা মুন্ডাকে উৎসর্গ করে সঙ্গীত এবং একক নাটক ‘বিদ্রোহ’ এবং চারাগাছে জলসিঞ্চনের মাধ্যমে ধরিত্রীকে শস্য শ্যামলা করার অঙ্গীকার কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়।তারপর অনুষ্ঠিত হয় জমজমাট বিদ্যালয় কুইজ উপহার দেন কুইজ মাস্টার কৃষ্ণপ্রসাদ ঘড়া। কুইজে প্রথম হয় ভাদুতলা হাইস্কুল প্রথম, দ্বিতীয় হয় মৌপাল হাইস্কুল ও তৃতীয় হয় ভাদুতলা হাইস্কুলের অপর একটি টিম। দ্বিতীয় দিন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি তথা মুখ্য আলোচক খড়্গপুর আই আই টি’র অধ্যাপক ড.ব্রজেশ দুবে তাঁর দুই ছাত্রের সহযোগিতায় “বর্জ্য থেকে সম্পদ: সমাজ সংযোগ” শীর্ষক মনোজ্ঞ আলোচনা উপস্থাপন করেন। তিন দিন ধরেই পাঞ্জাব ন্যাশানাল ব্যাঙ্কের পক্ষ থেকে এলডিএম শুভঙ্কর মাহাতোর নেতৃত্বে অনুষ্ঠানে উপস্থিত দর্শকদের সামাজিক সুরক্ষা মূলক বিভিন্ন সরকারি প্রকল্প সম্পর্কে বোঝান হয়‌। একাউন্ট খুলে দেওয়া হয়।তৃ্তীয় তথা শেষ দিনে পুরস্কার প্রদান ও লোকনিকেতনের নাটক ও সঙ্গীতানুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়।
অংশগ্রহণকারী সকল প্রতিযোগীদের হাতে সার্টিফিকেট ও সফল প্রতিযোগীদের হাতে পুরস্কার, ট্রফি ও সার্টিফিকেট তুলে দেন আয়োজক সংস্থার মেদিনীপুর ইউনিটের ক্ষেত্রীয় প্রচার আধিকারিক সুদীপ্ত বিশ্বাস সহ অন্যান্য অতিথিবৃন্দ। অনুষ্ঠানের বিভিন্ন দিনে প্রতিযোগীদের উৎসাহিত করতে এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশ নিতে উপস্থিত ছিলেন ভাদুতলা হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক ড.অমিতেশ চৌধুরী,পিড়াকাটা হাইস্কুলের প্রধান শিক্ষক গৌতম জানা, গুড়গুড়িপাল হাইস্কুলের সহকারী প্রধান শিক্ষক সঙ্গীত শিল্পী ড.প্রলয় বিশ্বাস, কুতুরিয়া জুনিয়র হাইস্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক অরুনাশু দে,মাষ্টার অ্যাথলিট ভানুপদ মাহাতো, চুয়াডাঙ্গা হাইস্কুলের সহ শিক্ষক সুদীপ কুমার খাঁড়া, সঙ্গীত শিল্পী সমীর মোহান্তি সহ অন্যান্য বিশিষ্ট জনেরা। অনুষ্ঠান সুচারুভাবে সম্পন্ন হওয়ায় সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান মৌপাল দেশপ্রাণ বিদ্যাপীঠের প্রধান শিক্ষক প্রসূন কুমার পড়িয়া। অন্যদিকে আয়োজক বিদ্যালয় এবং অংশগ্রহণকারী সকল বিদ্যালয় সহ সংশ্লিষ্ট এলাকাবাসীকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান ক্ষেত্রীয় প্রচার আধিকারিক সুদীপ্ত বিশ্বাস।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here