স্কুটি না কিনে দেওয়ায় আত্মঘাতী ছাত্রী

0
92

বদরুল আলম, বর্ধমান

বাবা স্কুটি না কিনে দেওয়ায় অভিমানী মেয়ে আত্মঘাতী।মর্মান্তিক এই ঘটনাটি ঘটেছে বর্ধমান থানা এলাকার গোসাইপাড়া বড় পুকুর এলাকায়। মৃতার নাম পূজা সরকার(১৭)।

রবিবার রাতে বাড়িতেই পূজা গলায় ওড়নার ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে পরিবারের লোকজন উদ্ধার করে বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে এলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরিবার সূত্রে জানা-গেছে পূজা স্থানীয় শিব-কুমার হরিজন হাইস্কুলের দ্বাদশ শ্রেণীর কলা বিভাগের ছাত্রী ছিল ।পূজার বাবা বাসুদেব সরকার পূর্ব বর্ধমান জেলাপরিষদের অস্থায়ী কর্মী। বিগত কয়েকদিন ধরেই পূজা তার বাবাকে স্কুটি কিনে দেওয়ার জন্য বায়না করছিল। দুমাস পর লোন করে তাকে গাড়ি কিনে দেওয়া হবে বলে বাসু বাবু জানিয়েছিলেন । কিন্তু অত্যন্ত জেদি অভিমানি মেয়ে তা মানতে চায় নি।বিষয়টি নিয়ে তাদের পরিবারে অশান্তিও হয়। হয় এরপরই সে অভিমানে গলায় ওড়নার ফাঁস লাগিয়ে আত্মঘাতী হয় । কয়েক মাস আগেও সে একই রকম ভাবে জেদ করে দামী স্মার্ট ফোনের জন্য।বাবা এক প্রকার বাধ্য হয়ে মেয়ের জেদের কাছে নতিস্বীকার করে তাকে স্মার্ট ফোন কিনে দিয়েছিলেন ।মানসিক অবসাদের কারনেই পূজা আত্মঘাতী হয়েছে বলে পুলিসের প্রাথমিক তদন্তে অনুমান ।

তবে অল্প বয়সে এইভাবে আত্মহত্যার প্রবণতা বাড়ায় উদ্বিগ্ন মনস্তত্ত্ববিদগণ।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here