লালগড়ের রাজবাড়িতে মহাসমারোহে আয়োজিত ঐতিহ্যবাহী রথযাত্রা

0
49

নিজস্ব সংবাদদাতা,ঝাড়গ্রামঃ

লালগড় রাজবাড়ির তিনশো বছর অতিক্রান্ত হলো ঐতিহ্যময় রথযাত্রার।এখানে নায়ক নায়িকা হলেন ‘রাধামোহন জিউ’ ও শ্রীমতী।রাজ পরিবারের ‘কুলদেবতা’ কষ্টিপাথরের এই ত্রিভঙ্গ কৃষ্ণ বিগ্রহের বাম পাশে থাকেন অষ্টধাতুর শ্রীমতী।

ratha yatra | newsfront.co
নিজস্ব চিত্র

রাধামোহন ও শ্রীমতীর সঙ্গে রথযাত্রায় সঙ্গী হন রাজ পরিবারের প্রাচীন মন্দিরের আরও কয়েকটি বিগ্রহ।অতীতের মতো এখনো প্রতি বছর পঞ্জিকার নির্ঘণ্ট মেনে অমৃতযোগে রাধামোহনের রথযাত্রার সূচনা হয়।

রথ যাত্রার সময় সন্ধ্যায় কয়েক হাজার মানুষের জনসমাগমে স্থানীয় রথতলা থেকে মাসির বাড়ির উদ্দেশ্যে সপার্ষদ রাধামোহনের রথের যাত্রা শুরু হয়। রাতে হাটচালায় মাসির বাড়িতে পৌঁছে যাত্রা শেষ হয়।

আরও পড়ুনঃ মহিলা পরিচালিত মাতৃ সংঘের উদ্যোগে রথযাত্রা মিত্র কম্পাউন্ডে

এখন সেই রাজাদের রাজত্ব আর নেই,সেই আভিজাত্যও আর নেই।কিন্তু লালগড়ের রাজা সাহসরায় রাজাদের নিয়মানুযায়ী কেবল মাত্র আজকের দিনটিতেই সর্ণালঙ্কারে সুসজ্জিত করে স্বপার্ষদ রাধামোহন এবং শ্রীমতী কে রথে চাপিয়ে মাসিবাড়ি নিয়ে যাওয়া হয়।ফলে সালঙ্কারা রাধামোহন ও শ্রীমতীকে একটি বার চোখের দেখা দেখতে এই দিনে ভিড় করে হাজার হাজার মানুষ।

তিনশো বছরের প্রাচীন রথ যা লালগড়ের রাজারা সুচনা করেছিলেন তা কিন্তু আজ আর রাজবংশের রথ নেই।বর্তমানে এটি এলাকার অন্যতম শ্রেষ্ঠ সর্বজনীন উৎসবে পরিনত হয়েছে ।দূর দূরান্ত থেকে বহু মানুষ এই রথের দিনটিতে লালগড়ে আসেন এই উৎসবে যোগ দিতে।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here