উদযাপিত হোক ভাষাদিবস সংস্কৃতি রক্ষার প্রতিজ্ঞায়

0
68

২১ শে ফেব্রুয়ারি ভাষা আন্দোলন স্মরনে বাঙ্গালী মাত্রই বেশ আবেগ আল্পুত।যে ভাষায় আমরা মা কে মা বলে ডাকি,যে ভাষায় আমরা ভালোবাসার কথা বলি।ভাব ভালোবাসা স্নেহ রাগ অভিমানের সেই ভাষা কেড়ে নিয়ে কেউ যদি জোর করে অন্যের ভাষা চাপিয়ে দিতে চায় তবে তার বিরুদ্ধে গর্জে ওঠাটাই স্বাভাবিক।রফিক সালাম বরকতরা বুকে পেতে বুলেট নিয়েছেন কিন্তু অধিকারের দাবী ছাড়েন নি।গৌরব উজ্জ্বল সেই বীরত্ব আমাদের গৌরবান্বিত করবে সেটিই স্বাভাবিক।কিন্তু গৌরবের ভাগ নিতে গেলে দায়িত্ব পালন করতে হয় আমরা কি সেই দায়িত্ব পালন করছি?

এই বাংলা রামমোহন, বিদ্যাসাগর, রবীন্দ্রনাথ,নজরুল, শরৎচন্দ্রের ভাষা।এই বাংলা ভাটিয়ালি সুরে হৃদয়কে করে উদ্বেল। ধান কাটার গানে পায় প্রাণের সুর।আজ আমরাই কি সেই ভাষাকে গলা টিপে মারছি না?

ভাষা শুধু ভাষা নয়।সংস্কৃতি কৃষ্টি। আজ বাঙ্গালি হিসেবে আমাদের ঐতিহ্য সংস্কৃতির বৈশিষ্ট্য কি ধরে রাখতে পারছি?

(১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি বাংলা ভাষার অধিকার আদায়ের দাবীতে ঢাকায় আয়োজিত মিছিল)

সব প্রশ্নেরই উত্তর কম বেশী নেতিবাচক। বেশ কিছু কাল পূর্বে বাংলা ভাষা ও সংস্কৃতির স্বঘোষিত অভিভাবক পত্রিকা যা পড়তে হয় না হলে নাকি পিছিয়ে পড়তে হয় তারা রবিবাসরীয় সাপ্লিমেন্টারীতে বড় নিবন্ধ লিখে প্রমান করতে চাইলেন বিদ্যাসাগর বড় ব্যবসাদার। বর্ণপরিচয় প্রকাশ করে তিনি নাকি দু পয়সা কামিয়ে নিয়েছেন।আর এই বর্ণপরিচয় যাতে স্কুলে পড়ানো হয় সেই জন্য বিদ্যাসাগর নাকি তার প্রভাব কাজে লাগিয়েছেন।ফলে কি দাঁড়াচ্ছিল বিদ্যাসাগর আর পাড়ার পাঁচু মস্তান একই গোত্রের।তিনি প্রভাব খাটিয়ে বর্ণপরিচয় চালান আর পাঁচু কনট্রাকটারির বরাত পায়।যে বর্ণপরিচয় নিয়ে রবীন্দ্রনাথ কৃতজ্ঞতা স্বীকার করলেন তাকে বাজারী পত্রিকা কোথায় নামিয়ে আনল।আমরা নীরব রইলাম।কিন্তু ২১ ফেব্রুয়ারি পালন করবো।সত্যিই কি সেই অধিকার আমাদের আছে?

ভাষা আন্দোলন একটি রাজনৈতিক আন্দোলন।হীন ক্ষমতালোভী রাজনীতির বিরুদ্ধে তরুন প্রানের স্পর্ধার রাজনীতি। অধিকার বুঝে নেওয়ার রাজনীতি।আর আজ তরুন সমাজ মাথা নত করে মেনে নেয় ক্ষমতার অঙ্গুলি হেলন।ক্ষমতার স্পর্ধায় রবীন্দ্র সঙ্গীত আজ ট্রফিক সিগন্যাল।আমরা বিশুদ্ধ সংস্কৃতিবান তাই সংস্কৃতি নিয়ে রাজনীতির এই ব্যাভিচার মেনে নিই কি অপূর্ব সংযমে।তবুও ধুতি পাঞ্জাবি পরে প্রতি বছর ২১ ফেব্রুয়ারি আমরা গাইবো আমার ভায়ের রক্তে রাঙানো ২১ ফেব্রুয়ারি আমি কি ভুলিতে পারি।অথচ প্রতিবারই আমরা ভুলে যায়।রফিক সালাম বরকত শহীদ বেদীর ফুল মালার চেয়েও বেশী সম্মানিত হবেন বাঙ্গালি তার কৃষ্টি সংস্কৃতি রক্ষায় যত্নবান হলে |

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91-9593666485