অকেজো এক্স-রে মেশিন, বিপাকে রোগী

0
69

সুদীপ পাল, বর্ধমানঃ

অপেক্ষার অন্ত নেই। একদিন দু’দিন করে আট মাসেরও বেশি সময় কেটে গেল। তবুও দীর্ঘদিন ধরে পড়ে থাকা অকেজো এক্সরে মেশিন ঠিক হল না।

the x ray machine damage | newsfront.co
নিজস্ব চিত্র

ফলে পরিষেবা না পেয়ে ফিরে যাচ্ছেন বহু রোগী। বাধ্য হয়ে অনেকেই বাইরে থেকে এক্স-রে করাচ্ছেন। দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালের এই চিত্র দীর্ঘদিন ধরেই এরকম। পরিষেবা না পেয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করছেন রোগী এবং তার পরিবার।

হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের দাবি, হাসপাতালের এক্স-রে মেশিনটি সারাবার মতন অবস্থায় নেই। তবে রোগীদের যাতে কোনও অসুবিধা না হয় সেজন্য বেসরকারি সংস্থার সাথে যৌথ উদ্যোগে ডিজিটাল এক্স-রে ব্যবস্থা চালু করার প্রক্রিয়া নেওয়া হয়েছে। ডিজিটাল মেশিনে পরীক্ষা হলে তার ফল ভাল হবে এবং রিপোর্ট পাওয়া যাবে দ্রুত।

আরও পড়ুনঃ চিকিৎসকের গাফিলতিতে রোগী মৃত্যুর অভিযোগ মন্তেশ্বরে

দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালের উপর দুর্গাপুর ছাড়াও ফরিদপুর, কাঁকসা, রাজবাঁধ অন্ডালের বহু মানুষ নির্ভর করে থাকেন। এক্স-রে মেশিনটি দীর্ঘদিন বিকল থাকায় তাঁরা সমস্যায় পড়েছেন।

চিকিৎসা পরিষেবা থেকে বঞ্চিত হচ্ছেন অনেকেই। গাছ থেকে পড়ে গিয়ে পায়ে চোট পেয়ে হাসপাতালে এসেছিলেন কাঁকসার সত্যনারায়ণ বাউরী। কিন্তু তাঁকেও বাইরে থেকে এক্স-রে করাতে হয়েছে।

বেসরকারি সংস্থার সাথে ডিজিটাল এক্স-রে চালু করার যে প্রক্রিয়া নেওয়া হয়েছে, তা কবে চালু হবে সে সম্পর্কে নির্দিষ্ট করে বলতে পারেনি হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

তবে এ প্রসঙ্গে হাসপাতাল সুপার দেবব্রত দাস বলেন, নতুন ডিজিটাল এক্স-রে মেশিন বসানোর জন্য কেন্দ্রীয়ভাবে সিএমওএইচ এর দফতর থেকে শুরু হয়েছে টেন্ডার প্রক্রিয়া।

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here