পঞ্চায়েত সদস্য এবং দুই তৃণমূল নেতার খুনের ঘটনায় রাজনৈতিক চাপানোতর ক্যানিং-এ

0
22

নিজস্ব প্রতিবেদন, নিউজ ফ্রন্টঃ

বৃহস্পতিবার সকালে দক্ষিণ ২৪ পরগনার ক্যানিংয়ের গোপালপুরে পঞ্চায়েত সদস্য এবং দুই তৃণমূল কর্মীকে গুলি করে গলা কেটে খুনের ঘটনায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায় এলাকা জুড়ে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

নিজস্ব চিত্র

এদিন সকালে স্থানীয় পঞ্চায়েত সদস্য স্বপন মাঝি ও  ভূতনাথ প্রামাণিক এবং ঝন্টু মাঝি নামে দুই তৃণমূল সদস্য ঐ এলাকার ২১ জুলাইয়ের প্রস্তুতি সভায় যোগ দিতে যাচ্ছিলেন  তাঁরা ৩ জনেই দক্ষিণ ২৪ পরগনা ক্যানিংয়ের গোপালপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের ধর্মতলা এলাকার বাসিন্দা।  তিনজনই বাইক চড়ে যাচ্ছিলেন। অভিযোগ, তখনই দুষ্কৃতীরা তাঁদের পথ আটকায় ও স্বপন মাঝিকে লক্ষ্য করে গুলি চালাতে থাকে। ভয় পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে বাঁচার চেষ্টা করেন বাকি দুজন। দুষ্কৃতীরা তাঁদের উদ্দেশ্যেও গুলি চালাতে থাকে। এরপর  তাঁদের গলা কাটা হয় বলেও অভিযোগ। এরপর ঘটনাস্থল ছেড়ে পালিয়ে যায় দুষ্কৃতীরা।

 আরও পড়ুনঃ ডোমকলে বোমা বিস্ফোরণে মৃত ১

রাস্তাতেই  তিন জনের দেহ ও বাইকগুলি পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয় বাসিন্দারা।  খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছয় ক্যানিং থানার পুলিশ বাহিনী। আসেন নিহতদের পরিজনেরাও।  মৃতদেহগুলি  উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠায় পুলিশ। তৃণমূল মুখপাত্র কুনাল ঘোষের দাবি এই হত্যাকান্ডের পিছনে রয়েছে বিজেপি। অন্যদিকে অভিযোগ ভিত্তিহীন বলে উড়িয়ে দিয়েছেন রাজ্য বিজেপি সভাপতি সুকান্ত মজুমদার। তাঁর দাবি এটি তৃণমূলের গোষ্ঠীদ্বন্দ্বের ফল। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

 

নিউজফ্রন্ট এর ফেসবুক পেজে লাইক দিতে এখানে ক্লিক করুন
WhatsApp এ নিউজ পেতে জয়েন করুন আমাদের WhatsApp গ্রুপে
আপনার মতামত বা নিউজ পাঠান এই নম্বরে : +91 94745 60584

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here